ঢাকা, শনিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৮, ৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ অাপডেট : ৩ ঘন্টা আগে English

প্রকাশ : ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১৬:৩০

প্রিন্ট

১০ বছর অদাবীকৃত আমানত বাংলাদেশ ব্যাংকে প্রেরণের নির্দেশ

১০ বছর অদাবীকৃত আমানত বাংলাদেশ ব্যাংকে প্রেরণের নির্দেশ
অনলাইন ডেস্ক

ব্যাংকসমূহের অদাবীকৃত আমানত এবং মূল্যবান সামগ্রী সরকারি খাতে জমা করণের জন্য বাংলাদেশ ব্যাংকে জমা দেওয়ার নির্দেশনা প্রদান করা হয়েছে। অদাবীকৃত আমানতের সময়সীমা যদি ১০ বছর অতিক্রম করে তাহলে তা বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রধান শাখা মতিঝিল শাখায় প্রেরণের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

আজ বুধবার বাংলাদেশ ব্যাংকের ব্যাংকিং প্রবিধি ও নীতি বিভাগ থেকে প্রকাশিত এক প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে এই নির্দেশনা দেওয়া হয়।

সরকারী অর্থ ও আদালতের (নাবালক) অর্থ ব্যতীত ১০ বছর পর্যন্ত লেনদেন বা যোগাযোগ করা না হলে সে ধরনের অর্থ, চেক, ড্রাফট বা বিনিময় দলিলের পাওনাদার বা পাওনাদারের পক্ষে কোন ব্যক্তিকে এবং মূল্যবান সামগ্রীর আমানতকারীকে ৩ মাসের নোটিশ প্রেরণ করতে হবে। নোটিশ প্রেরণের ৩ (তিন) মাস অতিক্রান্ত হওয়ার পরেও যদি তার প্রাপ্তি স্বীকার পত্র বা কোন উত্তর না আসলে অদাবীকৃত আমানত এবং মূল্যবান সামগ্রী সরকারী খাতে জমা করণের লক্ষ্যে বাংলাদেশ ব্যাংকে প্রদান করার নির্দেশনা জারি করেছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

তবে অদাবীকৃত আমানতের অর্থ ও মূল্যবান সামগ্রী বাংলাদেশ ব্যাংক কর্তৃক গৃহীত হওয়ার পর হতে ২ বছরের মধ্যে কোন দাবি উত্থাপিত হলে তা ফেরৎ প্রদানের জন্য সংশ্লিষ্ট ব্যাংক কর্তৃক গ্রাহককে প্রয়োজনীয় কাগজাদিসহ বাংলাদেশ ব্যাংক, প্রধান কার্যালয়, ঢাকা এর ব্যাংকিং প্রবিধি ও নীতি বিভাগ বরাবর আবেদন করতে হবে। আর দুই বছরের মধ্যে যদি কেই কোনো দাবি না করে তাহলে সেটা সরকারি সম্পদ বলে গণ্য হবে।

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • অালোচিত