ঢাকা, বুধবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৪ আশ্বিন ১৪২৫ অাপডেট : কিছুক্ষণ আগে English

প্রকাশ : ১২ জুন ২০১৮, ১৭:২৬

প্রিন্ট

রাজপথে ঈদ করার ঘোষণা শিক্ষকদের

রাজপথে ঈদ করার ঘোষণা শিক্ষকদের
নিজস্ব প্রতিবেদক

পবিত্র ঈদুল ফিতরের আগে সুনির্দিষ্ট ঘোষণা না আসলে রাজপথে ঈদ পালনের ঘোষণা দিয়েছেন নন-এমপিও শিক্ষক-কর্মচারীরা। পুলিশি বাধা উপেক্ষা করে মঙ্গলবার জাতীয় প্রেসক্লাবের বিপরীত পাশে অবস্থান কর্মসূচি পালন করছেন শিক্ষকরা।

নন-এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান শিক্ষক-কর্মচারী ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ ড. বিনয় ভূষণ রায় বলেন, এমপিওভুক্তির সুনির্দিষ্ট বক্তব্য বা গেজেট প্রকাশের ঘোষণা না আসলে শিক্ষক-কর্মচারীরা রাজপথে পবিত্র ঈদুল ফিতর পালন করবেন।

তিনি আরো বলেন, শিক্ষামন্ত্রী ১০ বছর ধরে বলে আসছেন বাজেটে বরাদ্দ থাকলে এমপিওভুক্ত করা হবে। অথচ নতুন করে আবারো মন্ত্রী মিথ্যাচার করছেন। বলছেন, এমপিওভুক্তর জন্য বাজেটে বরাদ্দ জরুরি নয়।

শিক্ষক নেতারা বলেন, শিক্ষামন্ত্রীর আশ্বাসে আমাদের বিশ্বাস নেই। তিনি অনেকবারই আশ্বাস দিয়েছেন। উনার ইচ্ছাও নেই এমপিও করার। এ কারণে সোমবার শিক্ষামন্ত্রী আমাদের বাড়ি ফিরে যাওয়ার আহ্বান জানালে আমরা তা প্রত্যাখ্যান করি।

ফেডারেশনের সভাপতি অধ্যক্ষ গোলাম মাহমুদুন্নবী ডলার বলেন, এমপিওভুক্তির দাবিতে শান্তিপূর্ণ আন্দোলন চালিয়ে গেলেও পুলিশ প্রেসক্লাবের সামনে বসতে দিচ্ছে না। তারা বলছে সরকারের অনুমতি নিয়ে আসতে। কিন্তু আন্দোলনের জন্য সরকার অনুমতি কাউকে দেয় না।

সোমবার এক বক্তব্যে শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেন, বাজেটে উল্লেখ না থাকলেও বেসরকারি শিক্ষকদের এমপিওভুক্তি হবেই। এ নিয়ে আন্দোলন করার প্রয়োজন নেই। বেসরকারি শিক্ষকদের দাবির বিষয়টি নিয়ে কাজ চলছে। আমরা আগেও বলেছি এমপিওভুক্তি হবে।

এমপিওভুক্তির দাবিতে নন-এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-কর্মচারীরা গত বছরের ২৬ ডিসেম্বর থেকে প্রেসক্লাবের সামনে লাগাতার কর্মসূচি শুরু করেন। গত ৫ জানুয়ারি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে তার তৎকালীন একান্ত সচিব সাজ্জাদুল হাসান সেখানে গিয়ে শিক্ষকদের আশ্বাস দেন। এরপর শিক্ষক-কর্মচারীরা আন্দোলন স্থগিতের ঘোষণা দেন।

অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত গত ৭ জুন যে বাজেট প্রস্তাব করেন, সেখানে নতুন এমপিওভুক্তির বিষয়ে সুস্পষ্ট কিছু বলেননি তিনি। ফলে শিক্ষকরা আবারো আন্দোলনের ঘোষণা দেন।

জেডএইচ/

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • অালোচিত