ঢাকা, রবিবার, ২৭ মে ২০১৮, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫ অাপডেট : ২ ঘন্টা আগে English

প্রকাশ : ১৮ জানুয়ারি ২০১৮, ১৭:৩১

প্রিন্ট

পাকিস্তানের বিরুদ্ধে অবস্থান নিতে জাতিসংঘে দেনদরবার

পাকিস্তানের বিরুদ্ধে অবস্থান নিতে জাতিসংঘে দেনদরবার
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

আফগানিস্তান নিরাপত্তা পরিষদের সদস্য রাষ্ট্রগুলোকে পাকিস্তানের নীতির বিরুদ্ধে অবস্থান নেওয়ার আহ্বান জানিয়েছে বলে দাবি করেছেন জাতিসংঘের মার্কিন দূত নিকি হ্যালি। 

তার দাবি, পাকিস্তান যেন তাদের আচরণ পরিবর্তন করে সেজন্য তাদের ওপর অবশ্যই চাপ বাড়াতে থাকবে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদ। ভারতীয় বার্তা সংস্থা প্রেস ট্রাস্ট অব ইন্ডিয়া পিটিআই-এর এক প্রতিবেদন থেকে এসব কথা জানা গেছে।

যুক্তরাষ্ট্র আর তাদের মিত্ররা ধারাবাহিক অভিযোগ করে আসছে, আফগান তালেবান ও তাদের মিত্র হাক্কানি নেটওয়ার্ককে পাকিস্তানে ‘নিভৃত আবাস’ গড়ে তোলার সুযোগ করে দিয়েছে ইসলামাবাদ। নতুন বছরের টুইটে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প মিথ্যাচার ও সন্ত্রাসবাদে মদদের অভিযোগ তুলে পাকিস্তানে সহায়তা বন্ধের হুমকি দেওয়ার পর ৫ জানুয়ারি নিরাপত্তা সহযোগিতা স্থগিতের ঘোষণা দেয় ওয়াশিংটন। 

সবশেষ মার্কিন দূতাবাস থেকে দেওয়া এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, উপ-সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী পাকিস্তানকে হাক্কানি নেটওয়ার্কসহ তার অঞ্চলভুক্ত অন্যান্য জঙ্গিগোষ্ঠীর ব্যাপারে সচেতন হওয়ার তাগিদ দিয়েছেন।  

এর একদিনের মাথায় জাতিসংঘে নিয়োজিত মার্কিন রাষ্ট্রদূত নিকি হ্যালি বৃহস্পতিবার নিরাপত্তা পরিষদের সম্ভাব্য পদক্ষেপের আভাস দেন।

নিরাপত্তা পরিষদের সদস্য রাষ্ট্রগুলোর প্রতিনিধিরা সম্প্রতি আফগানিস্তান সফরে যায়। সফর থেকে ফিরে নিউ ইয়র্কের জাতিসংঘ কার্যালয়ে নিকি হ্যালি সাংবাদিকদের উদ্দেশে বলেন, পাকিস্তানের ওপর চাপ বাড়াতে জাতিসংঘের ১৫ সদস্য দেশের কাছে আহ্বান জানিয়েছে আফগানিস্তান। ‘নিজেদের আচরণ পরিবর্তন করতে এবং আলোচনার টেবিলে বসতে পাকিস্তানের ওপর আরও বেশি চাপ প্রয়োগ করার আহ্বান জানিয়েছে তারা। -বলেন জাতিসংঘের মার্কিন দূত।

মার্কিন দূত দাবি করেন, তারা (আফগান নেতৃত্ব) তালেবানকে আলোচনার টেবিলে বসানোর ব্যাপারে আশাবাদী। 

তিনি জানিয়েছেন, আফগানিস্তানের নেতৃত্বেই সেই শান্তি আলোচনা অনুষ্ঠিত হবে। সে কারণে আফগানিস্তান পাকিস্তানের সহায়তামূলক পদক্ষেপ প্রত্যাশা করে। 

নিকি হ্যালির দাবি, পাকিস্তানকে চাপ প্রয়োগ ও আলোচনার টেবিলে আনতে তারা আমাদের আরও চাপ প্রয়োগের আহ্বান জানিয়েছে।

চলতি মাসের শুরুতে পাকিস্তানের ২ বিলিয়ন ডলার নিরাপত্তা সহায়তা স্থগিত করেছে যুক্তরাষ্ট্র। পাকিস্তান নিজেদের মাটিতে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদকে আশ্রয় দিয়েছে এবং তাদের সহায়তা দিচ্ছে এমন অভিযোগ এনে তাদের সহায়তা দিতে অস্বীকৃতি জানানো হয়েছে।

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • অালোচিত