ঢাকা, বুধবার, ২৩ মে ২০১৮, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫ অাপডেট : ৩৬ মিনিট আগে English

প্রকাশ : ১৮ জানুয়ারি ২০১৮, ১৯:৫২

প্রিন্ট

পাকিস্তানের পার্লামেন্টে বাংলাদেশের সমালোচনা

পাকিস্তানের পার্লামেন্টে বাংলাদেশের সমালোচনা
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগে রাজাকারদের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করায় আবারও বাংলাদেশের সমালোচনা করেছে পাকিস্তান। একই সঙ্গে অতীত ইতিহাসের দায় ভুলে পাকিস্তান সামনের দিকে এগিয়ে যেতে চায়, তবে এজন্য অন্য পক্ষগুলোকেও আন্তরিকতার সঙ্গে সেই প্রচেষ্টায় অংশ নিতে হবে বলে পাকিস্তানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী খাজা আসিফ মন্তব্য করেছেন।

বৃহস্পতিবার দেশটির জাতীয় পরিষদের অধিবেশনে বাংলাদেশের সঙ্গে পাকিস্তানের সম্পর্কের ব্যাপারে সংসদ সদস্যদের প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন তিনি।

পাকিস্তানের রাজধানী ইসলামাবাদে ২০১৬ সালের নভেম্বরে যে সার্ক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল, তা বাতিলের সঙ্গে বাংলাদেশ জিড়ত ছিল বলেও অভিযোগ করেছেন পাকিস্তানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী। 

খাজা মুহাম্মাদ আসিফ বলেন, গত বছর দক্ষিণ এশীয় আঞ্চলিক সহযোগিতা সম্মেলনের (সার্ক) আয়োজন পাকিস্তানে আয়োজন করা সম্ভব না হওয়ার পেছনে বাংলাদেশের দায়ী। সার্কের সদস্য রাষ্ট্রগুলোর মধ্যে অন্তঃর্ঘাতে ইন্ধন দিয়েছে ঢাকা।

জাতীয় পরিষদে খাজা আসিফ বলেন, ঢাকার সঙ্গে সম্পর্ক স্বাভাবিক করার প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে ইসলামাবাদ। বাংলাদেশসহ আঞ্চলিক দেশগুলোর সঙ্গে সম্পর্কে কোনো ধরনের উত্তেজনা চায় না পাকিস্তান।

পাকিস্তানের এই মন্ত্রী বলেন, ১৯৭৪ সালে ত্রিপক্ষীয় চুক্তি বাস্তবায়ন করছে না বাংলাদেশ। গত কয়েক বছরে ১৯৭১ সালের যুদ্ধের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট বেশ কয়েকজনের সর্বোচ্চ শাস্তি কার্যকর করেছে ঢাকা।

তিনি বলেন, ত্রিপক্ষীয় চুক্তির আওতায় প্রতিশ্রুতি রক্ষা করার জন্য বাংলাদেশ সরকারের প্রতি ধারাবাহিকভাবে আহ্বান জানিয়েছে পাকিস্তান। পাকিস্তান সামনের দিকে এগিয়ে যেতে চায়, কিন্তু অন্য পক্ষ্যকেও আমাদের এই প্রচেষ্টায় শামিল হতে হবে।

খাজা আসিফ বলেন, চলতি বছরের প্রথমার্ধ্বেই বাংলাদেশ-পাকিস্তানের ষষ্ঠ পর্যায়ের দ্বিপাক্ষিক রাজনৈতিক বৈঠক ঢাকায় অনুষ্ঠিত হতে পারে। এই বৈঠকের মাধ্যমে দুই দেশের মাঝে সম্পর্ক জোরদারের সুযোগ তৈরি হবে বলে প্রত্যাশা করেছেন তিনি।

/এসবি/

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • অালোচিত