ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৫ নভেম্বর ২০১৮, ১ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ অাপডেট : ২ ঘন্টা আগে English

প্রকাশ : ১১ জুলাই ২০১৮, ২০:৩৭

প্রিন্ট

গুহাবন্দী কিশোর ফুটবলারদের উদ্ধারের গল্প নিয়ে সিনেমা

গুহাবন্দী কিশোর ফুটবলারদের উদ্ধারের গল্প নিয়ে সিনেমা
জার্নাল ডেস্ক

টানা ১৭ দিন গুহায় আটকে ছিলো থাইল্যান্ডের বারো কিশোর ও তাদের ফুটবল কোচ। শ্বাসরুদ্ধকর অভিযানের মাধ্যমে বন্দি অবস্থা থেকে তাদের জীবিত উদ্ধার করা হয়েছে। আর উদ্ধার কাহিনী নিয়ে ছবি বানাতে চান হলিউডের দুই প্রযোজক মাইকেল স্কট ও অ্যাডাম স্মিথ।

আন্তর্জাতিক গসিপ ম্যাগাজিন ভ্যারাইটি জানাচ্ছে, পিউর ফ্লিক্স এন্টারটেইনমেন্ট নামের একটি প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান থাই বালকদের আটকে পড়ার ঘটনা নিয়ে সিনেমা নির্মাণ করতে যাচ্ছে। এজন্য তারা থাই কর্তৃপক্ষের কাছে অনুমতির জন্য আবেদনও করেছে। প্রতিষ্ঠানটির সিইও ম্যাট স্কট নিজে উপস্থিত ছিলেন উদ্ধার অভিযানে। এ ঘটনা প্রসঙ্গে তিনি হলিউড রিপোর্টারকে বলেছেন, যে সাহস ও নায়কোচিত উদ্ধার অভিযান আমি স্বচক্ষে দেখেছি তা নিয়ে সিনেমা হওয়া উচিত। এটি করতে পারলে আমাদের জন্য একটি অনুপ্রেরণা হয়ে থাকবে।

দুঃসাহসিক এ উদ্ধারকাজ দেখতে এসে অ্যাডাম স্মিথ জানান, সিনেমা বানানোর জন্য তিনি সেখানকার লোকদের সঙ্গে কথা বলেছেন। এছাড়া গুহায় আটকে থাকা পরিবারের সঙ্গেও কথা বলেন।

স্মিত বলেন, সিনেমা বানানোর জন্য এটা দারুন একটা গল্প ও প্রেক্ষাপট। তাই আগেভাগে আমরা চলে এসেছি। অন্য পরিচালকেরা যে কোন সময় চলে আসতে পারে।

মার্কিন প্রযোজক স্কটের স্ত্রী থাইল্যান্ডের বাসিন্দা। বছরের তিন মাস থাইল্যান্ডে থাকেন তিনি। স্কট জনায়, স্বাভাবিকভাবে আমরা উদ্বেগে ছিলাম এতদিন। তাই কাউকে তেমন কোন প্রশ্ন করা হয়নি।

তার সংস্থা ‘পিওর ফ্লিক্স ফিল্ম’ কাজ করে মূলত অ্যারিজ়োনা ও লস অ্যাঞ্জেলেসে। এখন অবধি তাদের বানানো সবচেয়ে বড় ছবি ‘গড’স নট ডেড’। ২০১৪ সালে তৈরি এই ছবিটি ৭ কোটি ডলার ব্যবসা করেছিল।

স্কট আরও জানায়, আমাদের নতুন এ ছবির কেন্দ্রে থাকবেন দুই ব্রিটিশ ডুবুরি। যারা প্রথম ওই নিখোঁজ ১৩ জনের সন্ধান পেয়েছিলেন। স্কটের ভাষায়, এই গল্প বীরত্ব ও সাহসিকতার। আমাদের পরবর্তী সিনেমার জন্য যা আদর্শ। অবিশ্বাস্য অভিযান সারা বিশ্বের অসংখ্য মানুষকে অনুপ্রাণিত করবে। সকলের জানা দরকার সত্যিকার এ ঘটনার।

ব্যাংককে ‘কেএওএস এন্টারটেনমেন্ট’ নামে একটি প্রযোজনা সংস্থা আছে হলিউড পরিচালক স্মিথের। তিনি বলেন, এখানে কোনও রাজনৈতিক উদ্দেশ্য নেই, প্রত্যেকে আমরা প্রার্থণা করেছি ভালোভাবে উদ্ধারকাজ শেষ হোক এবং তা হয়েছে। এখন আমরা চাই সত্যিকার এ ঘটনা সবাই জানুক সিনেমার মাধ্যমে।

এদিকে গত মঙ্গলবার ডিসকভারি চ্যানেল এই ঘটনার উপর একটি ডকুমেন্টারি নির্মাণের ঘোষণা দিয়েছে। যেটি প্রচারিত হবে আসছে শুক্রবার।

উল্লেখ্য, থাইল্যান্ডের থাম লুয়াং গুহায় গত ২৩ জুন আটকা পড়েছিলেন 'ওয়াইল্ড বোরস' ফুটবল দলের ১২ কিশোর খেলোয়াড় ও তাদের কোচ। তিন দিনের শ্বাসরুদ্ধকর অভিযান শেষে তাদের সবাইকে উদ্ধার করা হয়।

ডিপি/

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • অালোচিত