ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ০৯ জুলাই ২০২০, ২৫ আষাঢ় ১৪২৭ আপডেট : ১৪ মিনিট আগে English

প্রকাশ : ২৬ মে ২০২০, ১৫:৪৯

প্রিন্ট

দোকানের সামনে ইজিবাইক রাখায় সংঘর্ষ, ওসিসহ আহত অর্ধশতাধিক

দোকানের সামনে ইজিবাইক রাখায় সংঘর্ষ, ওসিসহ আহত অর্ধশতাধিক
গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি

গোপালগঞ্জের মুকসুদপুরে দুটি সংঘর্ষে মুকসুদপুর থানার ওসিসহ অর্ধশতাধিক ব্যক্তি আহত হয়েছে। এ সময় ৪টি দোকান, ১টি বাড়ি ভাংচুর ও একটি মোটরসাইকেল আগুন দিয়ে জ্বালিয়ে দেয়া হয়।

মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলার বনগ্রাম ও মহারাজপুর এবং আইকদিয়া ও পাইকদিয়া গ্রামের মধ্যে এসব সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। সংঘর্ষে আহত ওসিসহ সকলকে হাসপাতালে ভর্তি করে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

মুকসুদপুর ও কাশিয়ানী সার্কেল এর সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার আনোয়ার হোসেন ভূইয়া জানান, বনগ্রাম বাজারে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানের ছেলে আলমগীর মিয়ার ওষুধের দোকানের সামনে মহারাজপুর গ্রামের ইজিবাইক চালক লাবলু খান তার ইজিবাইক রাখেন। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে দুজনের মধ্যে কথা কাটাকাটির ঘটনা ঘটে।

এর জের ধরে বনগ্রাম ও মহারাজপুর গ্রামের লোকজন দেশীয় অস্ত্র-শস্ত্র নিয়ে ঘণ্টাব্যপী ধরে সংঘর্ষে লিপ্ত হয়। পরে খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে চেষ্ঠা করে।

এ সময় মুকসুদুপর থানার ওসি মির্জা আবুল কালাম আজাদসহ তিন পুলিশ সদস্যসহ উভয় পক্ষের অন্তত ৪০ জন আহত হন। আহতদেরে মধ্যে দুইজনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে, ২০ জনকে মুকসুদপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এবং অন্যদেরকে বিভিন্ন স্বাস্থ্য কেন্দ্রে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

অপরদিকে, এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে বনগ্রাম বাজারের পাশের গ্রাম আইকদিয়া ও পাইকদিয়া গ্রামবাসীও সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এতে এখানে উভয় দলের ৩০ জন আহত হন। পরে খবর পেয়ে মুকসুদপুর থানার পুলিশের অপর একটি দল ঘটনাস্থলে গিয়ে দুই ঘণ্টা চেষ্টা করে পরিস্থিতি তাদের নিয়ন্ত্রণে আনে।

আহতদের বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। এ সংঘর্ষে পর এলাকায় থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে। সেখানে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

বাংলাদেশ জার্নাল/এসকে

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত