ঢাকা, শুক্রবার, ২৩ অক্টোবর ২০২০, ৮ কার্তিক ১৪২৭ আপডেট : ৮ মিনিট আগে English

প্রকাশ : ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৫:২২

প্রিন্ট

যুবককে গলা কেটে হত্যা

যুবককে গলা কেটে হত্যা
পাবনা প্রতিনিধি

পাবনার সাঁথিয়ায় রবিউল ইসলাম (২৪) নামের এক যুবককে গলাকেটে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। সাঁথিয়া উপজেলার ধোপাদহ ইউনিয়নের তেঁথুলিয়া কারিগর পাড়ায় শুক্রবার রাত আনুমানিক ৮ টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

রবিউল ওই তেঁথুলিয়া কারিগর পাড়া গ্রামের আব্দুল গফুর মোল্লার ছেলে।

সাঁথিয়া থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আবুল কালাম আজাদ নিহত রবিউলের স্বজনদের বরাত দিয়ে জানান, অনেকদিন হলো রবিউলের স্ত্রী বাড়ি থাকে না। তাই তার ভাই রমজানের স্ত্রী তাকে রান্না করে দেন। শুক্রবার রাতে রবিউলকে খাবার দেয়ার জন্য ডাকাডাকি করা হয়। কিন্তু কোন সাড়া না পাওয়ায় রবিউলের ভাতিজা ঘরে ঢুকে দেখেন বিছানায় রবিউলের শরীর কাঁথা দিয়ে ঢাকা। কাঁথা সড়াতেই তাকে গলাকাটা অবস্থায় দেখতে পান স্বজনরা।

সাঁথিয়া থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আবুল কালাম আজাদ আরো জানান, রবিউলের ঘরে ঢুকতে হলে তার ভাই রমজান আলীর দোকানের পাশ দিয়ে যেতে হয়। তাই বাইরে থেকে সন্ধ্যা রাতে খুন করে নির্বিঘ্নে পালিয়ে যাওয়াটা কষ্টকর। তিনি জানান, কে বা কারা তাকে শুধু জবাই করেনি, মৃত্যু নিশ্চিত করতে পায়ের রগও কেটে রেখে যায়।

তিনি আরো জানান, সপ্তাহ দুয়েক আগে প্রতিবেশী একজনের বাড়ি চুরি হয়। সে সময় তারা গাঁজাসক্ত রবিউলকে দোষারোপ করেন। তাকে এজন্য মারধোর করে একটি দাঁতও ভেঙে ফেলেন।

তিনি আরো জানান, রবিউলের স্ত্রী পরকীয়ায় আসক্ত বলে তারা শুনেছেন। তার দাঁত ভাঙার আলামতটিও তারা দেখতে পেয়ছেন। তবে তিনি জানান, রবিউল ওই সময় হাসপাতালে চিকিৎসা নিলেও বলেছিলেন পড়ে গিয়ে তার দাঁত ভেঙেছে।

সাঁথিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আসাদুজ্জামান জানান, এ যুবকের হত্যাকাণ্ডটি রহস্যজনক। পূর্বশত্রুতার জের ধরে এ ঘটনা ঘটতে পারে। পুলিশ লাশ উদ্ধার করে শুক্রবার রাতেই থানায় নিয়ে আসে। ঘটনার রহস্য উদঘাটনের জন্য তার ভাই রমজান আলীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নিয়ে আসা হয়েছে।

এদিকে মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য শনিবার সকালে পাবনা জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। শনিবার দুপুর পর্যন্ত থানায় মামলা হয়নি।

বাংলাদেশ জার্নাল/এনকে

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত