ঢাকা, বুধবার, ২৫ নভেম্বর ২০২০, ১০ অগ্রহায়ণ ১৪২৭ আপডেট : ৫ মিনিট আগে English

প্রকাশ : ২৯ অক্টোবর ২০২০, ১৯:৩৬

প্রিন্ট

ট্রাকের অবৈধ স্ট্যান্ড উচ্ছেদে দক্ষিণ সিটির অভিযান

ট্রাকের অবৈধ স্ট্যান্ড উচ্ছেদে দক্ষিণ সিটির অভিযান
ছবি: সংগৃহীত
নিজস্ব প্রতিবেদক

ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন এলাকায় ডিএসসিসি পরিচালিত ভ্রাম্যমাণ আদালতগুলোর ধারাবাহিক নিয়মিত অভিযানে অবৈধ স্থাপনা ও এডিস মশার প্রজননস্থলের বিরুদ্ধে অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার নিয়মিত উচ্ছেদ কার্যক্রমের ধারাবাহিকতায় কর্পোরেশনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এ এইচ ইরফান উদ্দিন আহমেদ ৫৫ নং ওয়ার্ডের বেড়িবাঁধ সংলগ্ন এলাকায় ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের ২৬ শতাংশ জায়গায় অবৈধভাবে গড়ে ওঠা ট্রাক ও মিনি-ট্রাকের অবৈধ স্ট্যান্ড উচ্ছেদ করা হয়।

অভিযানকালে রাস্তার উপর নির্মাণ সামগ্রী রাখা এবং বাঁশের আড়ত প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে ডিএসসিসির সম্পত্তি দখল করায় স্থানীয় সরকার (সিটি কর্পোরেশন) আইন ২০০৯ এর ৭ ও ৮ ধারা মোতাবেক দুটি মামলা রুজু করা হয় এবং প্রত্যেককেই নগদ ১০ হাজার করে ২০ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়। এ সময় ট্রাক ও মিনি-ট্রাকের অবৈধ স্ট্যান্ড উচ্ছেদ করে তা স্থানীয় কাউন্সিলর আলহাজ্ব মোঃ নুরে আলম চৌধুরীর তত্ত্বাবধানে বুঝিয়ে দেওয়া হয়।

এদিকে ৩১তম দিনে কর্পোরেশনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট কাজী মোহাম্মদ ফয়সাল ও ফেরদৌস ওয়াহিদের নেতৃত্বাধীন ভ্রাম্যমাণ আদালত আজ যথাক্রমে অঞ্চল ১ এর ১৫ নং ওয়ার্ডের ধানমন্ডি এলাকায় এবং অঞ্চল ৮ এর ৬৬ নং ওয়ার্ডের পশ্চিম সানারপাড় এলাকায় মশার প্রজননস্থল চিহ্নিতকরণে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ কাজী ফয়সালের নেতৃত্বাধীন ভ্রাম্যমাণ আদালত ৩৬টি স্থাপনা পরিদর্শন করেন। এ সময় তিনি ১টি স্থাপনায় এডিস মশার লার্ভা পাওয়ায় দন্ডবিধি, ১৮৬০ এর ২৬৯ ধারায় ১টি মামলা দায়ের ও নগদ ৫০ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করেন।

একইসাথে ডিএসইসিসির নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ফেরদৌস ওয়াহিদের নেতৃত্বাধীন ভ্রাম্যমাণ আদালত অঞ্চল-৮ এর সানারপাড় এলাকায় অভিযান পরিচালনা করেন। এ সময় তিনি ৪৫টি স্থাপনা পরিদর্শন করেন এবং ১টি স্থাপনায় এডিস মশার লার্ভা পাওয়ায় ১টি মামলা দায়ের ও নগদ ২ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করেন।

এদিকে আজ সন্ধ্যায় নগর ভবনে ‘পাবলিক প্লেসে ধূমপান’ ও মাস্ক পরিধান না করার অপরাধে একজন সেবাগ্রহীতার বিরুদ্ধে ১টি মামলা দায়ের ও ৫০০ টাকা জরিমানা করা হয়। ডিএসসিসির নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এ এইচ ইরফান উদ্দিন আহমেদ জনৈক সেবাগ্রহীতা মোঃ নবীনকে দন্ডবিধি, ১৮৬০ এর ১৮৮ ধারায় মামলাটি দায়ের করেন।

আজকের উচ্ছেদ কার্যক্রম প্রসঙ্গে ডিএসসিসির নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এ এইচ ইমরান উদ্দিন আহমেদ বলেন, প্রভাবশালী একটি চক্র দীর্ঘদিন ধরে কর্পোরেশনের ২৬ শতাংশ জায়গা দখল করে সেখানে অবৈধভাবে ট্রাক ও মিনি-ট্রাক স্ট্যান্ড গড়ে তোলে ব্যবসা পরিচালনা করছিল। এছাড়াও সেখানে বাঁশের আড়ত এবং রাস্তা দখল করে নির্মাণ সামগ্রী রাখা ছিল। ডিএসসিসির মেয়রের নির্দেশনার আমরা সেখানে অভিযান পরিচালনা করেছি এবং অবৈধভাবে প্রতিষ্ঠিত ট্রাক ও মিনি-ট্রাক স্ট্যান্ড উচ্ছেদ করেছি। অভিযানে একজন বাঁশের আড়তদার ও রাস্তা দখল করে নির্মাণসামগ্রী রাখা আরেক ব্যক্তির বিরুদ্ধে দুটি মামলা দায়ের করে ২০ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়। এছাড়াও, উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করে সন্ধ্যায় দপ্তরে অবস্থান করাকালীন এক সেবাগ্রহীতা মাস্ক না পরে নগর ভবনে এদিক-সেদিক ঘোরাফেরা ও প্রকাশ্যে ধুমপান করছিলেন। পরে তার বিরুদ্ধেও একটি মামলা দায়ের করে জরিমানা আদায় করা হয়।

সব মিলিয়ে কর্পোরেশনের ৩টি ভ্রাম্যমাণ আদালত আজ ৫টি মামলা দায়ের ও নগদ ৭২ হাজার ৫০০ টাকা জরিমানা আদায় করেন। আগামী রোববার ভ্রাম্যমাণ আদালতগুলো যথারীতি অভিযান পরিচালনা করবে।

বাংলাদেশ জার্নাল/এইচকে

অন্যরা যা পড়ছেন:

> রাজধানী‌তে এমএলএম ব্যবসায়ের নামে প্রতারণা, তিনজন গ্রেপ্তার

> ৩ দিনের রিমান্ডে ইরফান ও তার বডিগার্ড

> এমপিপুত্র ইরফান ও তার সহযোগীর নামে আরো ৪ মামলা

> চকবাজারে কারখানা শ্রমিককে কুপিয়ে হত্যা

> আইনমন্ত্রী ও ভারতীয় হাইকমিশনারের বৈঠক

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত