ঢাকা, সোমবার, ০৮ মার্চ ২০২১, ২৩ ফাল্গুন ১৪২৭ আপডেট : কিছুক্ষণ আগে English

প্রকাশ : ২৩ জানুয়ারি ২০২১, ১৮:৪২

প্রিন্ট

‘স্বপ্নেও ভাবতি পারি নাই দালান ঘরে ঘুমাবো’

‘স্বপ্নেও ভাবতি পারি নাই দালান ঘরে ঘুমাবো’
ছবি- প্রতিনিধি

নড়াইল প্রতিনিধি

‘স্বপ্নেও কোন দিন ভাবতি পারি নাই নিজির নিজর দালান ঘরে বাস করবো। শ্যাখের বিটি হাসিনা রাজা হয়ে আমাগে দালান করে দিছে। তার দয়ায় শেষ জীবনে একটু শান্তিতি ঘুমাতি পারবো। আমরা শ্যাখের বিটির এই ঋণ কোনোদিন ভুলবো না। তারে আল্লায় বাঁচায় রাখুক।’

নড়াইলের কালিয়া উপজেলার বড়কালিয়া গ্রামের নদী ভাঙনে সর্বস্ব হারানো মুক্তিযোদ্ধা মোর্শেদ আলী (৭৮) এভাবেই কথাগুলো বলছিলেন।

এছাড়া চরমধুপুর গ্রামের আসহায় দিনমজুর সবুর শিকদার ও দুটি সন্তান নিয়ে ৪ মাস আগে বিধবা হওয়া ইসলামপুর গ্রামের কুলসুম বেগম পাঁচ বছরের শিশু মিকাইল ও ৫ মাসের শিশু ইসমাইলকে নিয়ে চাবি নিতে এসেছিলেন উপজেলা সদরে।

স্বামীর মৃত্যুর পর শিশু সন্তানদের নিয়ে কুলসুম বেগম আশ্রয় নিয়েছেন অন্যের বাড়িতে। রোজগারে কেউ না থাকায় অন্যের সহায়তায় কোনোমতে দিন কাটাচ্ছেন তিনি। তার মতো শতছিদ্র টিনের জরাজীর্ণ ঝুপড়ি ঘরে বসবাস করে আসছেন অনেকেই। বর্ষার সময় অন্যর বাড়ির বারান্দায়ও আশ্রয় নিতে হয়েছে তাদের। মুজিববর্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপহার 'স্বপ্নের নীড়' পেয়ে অশ্রুজল চোখে দুহাত উপরে তুলে অনুভূতি ব্যক্ত করেছেন তারা।

আরও পড়ুন: আজ আমার অত্যন্ত আনন্দের দিন: প্রধানমন্ত্রী

স্বপ্নের নীড় পাওয়া তাদের মতো আরও অনেকেই প্রধানমন্ত্রীর সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা করেছেন। গৃহ পাওয়া ওই মানুষগুলোর হাস্যোজ্জ্বল মুখের দিকে তাকিয়ে বোঝা গেলো তাদের আনন্দ যেন রাখার জায়গা নেই।

সারাদেশের মতো শনিবার কালিয়া উপজেলার ১৫০ পরিবারকে প্রধানমন্ত্রীর উপহার 'স্বপ্ননীড়ের' চাবি হস্তান্তর করা হয়েছে।

‘আশ্রায়নের অধিকার শেখ হাসিনার উপহার’ স্লোগানকে সামনে রেখে মুজিব জন্মশতবার্ষের উপহার হিসাবে শনিবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে সারাদেশের ভূমিহীন ও গৃহহীনদের মাঝে জমি ও ঘরের চাবি হস্তান্তরের উদ্বোধন করেন। এরপর সারাদেশের মতো নড়াইলের কালিয়া উপজেলার ১৫০ ভূমিহীন ও গৃহহীন পরবারের কাছে জমির দলিলসহ ঘরের চাবি হস্তান্তর করা হয়।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন অফিস সূত্রে জানা গেছে, এক লাখ ৭১ হাজার টাকা ব্যয়ে নির্মিত দুই কক্ষবিশিষ্ট প্রতিটি ঘর ইটের দেয়াল, কংক্রিটের মেঝে ও রঙিন টিনের ছাউনি দিয়ে তৈরি করা হয়েছে। সাথে থাকছে একটি রান্নাঘর, স্বাস্থ্যসম্মত পায়খানা ও সামনে খোলা জায়গা।

উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে জড়ো হওয়া হতদরিদ্র মানুষের হাতে প্রধানমন্ত্রীর উপহারের আধাপাকা ঘরের চাবিসহ ২ শতক জমির দলিল হস্তান্তর করেন কালিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কৃষ্ণপদ ঘোষ এবং উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. নাজমুল হুদা।

চাবি হস্তান্তর অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন সহকারি কমিশনার (ভূমি) মো. জহুরুল হক, যশোর পল্লী বিদ্যূৎ সমিতির কালিয়া আঞ্চলিক কার্যালয়ের ডিজিএম মো. মমিনুর রহমান বিশ্বাস, কালিয়া প্রেসক্লাবের সভাপতি মশিউল হক মিটুসহ আরও অনেকেই।

বাংলাদেশ জার্নাল/এসকে

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত