ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৭ জুন ২০২১, ৩ আষাঢ় ১৪২৮ আপডেট : ৪২ মিনিট আগে

প্রকাশ : ১১ জুন ২০২১, ২০:৫৫

প্রিন্ট

শেষ পর্যন্ত শশুর বাড়ি যাওয়া হলো না সুইটির

শেষ পর্যন্ত শশুর বাড়ি যাওয়া হলো না সুইটির

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি

বিয়ে উপলক্ষে কনেবাড়ি সাজানো হয়েছিলো জমকালো রূপে। সব ধরনের প্রস্তুতি সম্পন্ন ছিলো বর-কনে উভয় পক্ষের। বৃহস্পতিবার বিকেলে ছিল কনের গায়েহলুদ। বিয়েবাড়িতে চলছিলো আনন্দ-উল্লাস। কিন্তু এক মর্মান্তিক ঘটনায় সবকিছু যেনো থমকে গেছে। যার জন্য এতো আয়োজন সেই ফিরলো লাশ হয়ে।

বলছিলাম হবিগঞ্জের মাধবপুর উপজেলার ধরাচান্দুরা গ্রামের সুইটি আখতারের কথা। শুক্রবার (১৯) বিয়ের দিন ধার্য ছিল তার। তার আগের দিন রাতে (বৃহস্পতিবার) গায়ে হলুদের রাতে হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়েন সুইটি। সঙ্গে সঙ্গে তাকে স্থানীয় একটি ক্লিনিক নেওয়া হলে চিকিৎসকরা হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেন। সেই অনুযায়ী সুইটিকে একটি বেসরকারি হাসপাতালে নেয়া হলে সেখানকার চিকিৎসকেরাও তাকে দ্রুত সরকারি হাসপাতালে নেওয়ার কথা বলেন। কথামতো অসুস্থ সুইটিকে নিয়ে যাওয়া হয় পাশের ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা সদর হাসপাতালে। এখানকার চিকিৎসকেরাও তার প্রাথমিক পরীক্ষা করে দ্রুত ঢাকায় নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেন। ওই দিন রাতেই ঢাকায় নিয়ে যাওয়ার সময় পথে মৃত্যু হয় সুইটির।

সুইটির পরিবার বলছে, বিয়ের ৩/৪ দিন আগ থেকে সুইটি জ্বর, গলাব্যথায় ভুগছিল। মনে হয়েছিলো ভাইরাসজনিত জ্বর। কিন্তু হাসপাতালে নেওয়ার পর চিকিৎসকেরা জানান, সে কালাজ্বরে ভুগছিল। কিন্তু এভাবে সুইটির মৃত্যু হবে, তা কল্পনাও করেনি।

মাধবপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুর রাজ্জাক বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

বাংলাদেশ জার্নাল/আরএ

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত