ঢাকা, রোববার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ৪ আশ্বিন ১৪২৮ আপডেট : ২ মিনিট আগে

ঢাকায় কঠোর বিধিনিষেধের তৃতীয় দিনে বেড়েছে মানুষের চলাচল

  নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশ : ২৫ জুলাই ২০২১, ১৭:৫০

ঢাকায় কঠোর বিধিনিষেধের তৃতীয় দিনে বেড়েছে মানুষের চলাচল
নিজস্ব প্রতিবেদক

ঈদের পর শুরু হওয়া কঠোর বিধিনিষেধের তৃতীয় দিন রোববার পুরো ঢাকাতেও যানবাহন চলাচল বেড়েছে। তবে অধিকাংশই প্রাইভেট কার, মোটর সাইকেল ও পণ্যবাহী পিকআপ।

জরুরি প্রয়োজন ছাড়া ঘরের বাইরে বের হলেই নানা ধরনের পুলিশি ঝামেলায় পড়তে হচ্ছে। এমন পরিস্থিতিতেও ঢাকা মহানগরের বিভিন্ন সড়কে মানুষ ও ব্যক্তিগত পরিবহনের চাপ বেড়েছে।

গণপরিবহন না থাকায় জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বেরিয়ে দ্বিগুণ ভাড়ায় রিকশায় করে গন্তব্যে ছুটছেন অনেকে।

শনিবার রাতে গাজীপুর থেকে এসেছিলেন এক ব্যবসায়ী ফেরার পথে তিনি পড়েন বিড়ম্বনায়। পায়ে হেঁটেই গন্তব্যে যাচ্ছিলেন তিনি। দুই একটি মোটর সাইকেল পেলেও কেউ যেতে রাজি হয়নি।

ঈদের ছুটি শেষে রবিবার গ্রাহক চাহিদামতো ব্যাংকের শাখা খোলা থাকবে। প্রয়োজনীয় ব্যাংকিং লেনদেন করতে অনেকে বের হয়েছেন।

মহাখালী ফ্লাইওভারের নিচে উত্তরা, আব্দুল্লাহপুরগামী বহু যাত্রীকে অপেক্ষায় দেখা যায়। তাদের অধিকাংশই এসেছেন কোনো না কোনো হাসপাতালে।

রাজধানীর কলেজগেট এলাকায় চেকপোস্টে দায়িত্ব পালন করছিলেন ট্রাফিক ইন্সপেক্টর জহুরুল হক বলেন, গত দুইদিনের তুলনায় আজ যানবাহন ও মানুষের চলাচল বেশি।চিকিৎসা ও হাসপাতালে রোগী নিয়ে যেতে ও টিকা নেওয়ার জন্য অনেকে বের হয়েছেন। বেশিরভাগ মানুষই প্রয়োজনীয় কাজে বের হয়েছেন। তবে যারা বিনাকারণে বের হয়েছেন তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

রামপুরা থেকে যাত্রী নিয়ে কাকরাইলে আসা রিকশা চালক বলেন, গত দুইদিন মানুষজন রাস্তায় কম দেখা গেছে। আইজকা একটু বেশি।

শান্তিনগর, মালিবাগ রেল গেইটের কাঁচাবাজারেও মানুষজনের উপস্থিত বেশি দেখা গেছে। মূল রাস্তা ছাড়াও অলিগলিতেও মানুষজনের উপস্থিতি বেশি দেখা গেছে। গলির ভেতরে অধিকাংশ দোকানপাটই খোলা।

ফেরিওয়ালারাও পুলিশের গাড়ি দেখলে গলির ভিতরে ঢুকে যাচ্ছেন।

ধানমণ্ডি, মোহাম্মদপুর, সাত মসজিদ রোডেও এদিন তুলনামূলকভাবে লোকজনের আনাগোনা বেড়েছে। ধানমণ্ডি ২৭ নম্বর এলাকায় অফিস খোলা থাকায় লোকজনের আনাগোনা বেড়েছে।

এখানে ট্রাফিক সার্জেন্ট দুর্জয় হাসান জানান, সকাল থেকে তিনজনকে মামলা দেওয়া হয়েছে। প্রজ্ঞাপন অনুযায়ী এসব লোকের বের হওয়ার কথা নয়।

একই দৃশ্য পুরান ঢাকার আজিমপুর, লালবাগ, কেল্লার মোড়, বকশিবাজার ও পলাশীর অলিগলিতে।

বাংলাদেশ জার্নাল/এমএ

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত