গাজীপুরে পিস্তল নিয়ে আদালতে আসামি, শেষে কারাগারে

প্রকাশ : ০৪ জুলাই ২০২২, ১০:৫২ | অনলাইন সংস্করণ

  গাজীপুর প্রতিনিধি

ছবি- প্রতিনিধি

জমি সংক্রান্ত জাল জালিয়াতির একটি মামলায় আদালতে জামিন চাইতে গিয়ে পিস্তল নিয়ে কাঠগড়ায় ঢুকে পড়েন মনসুর আহমেদ (৪৫) নামের এক আসামি। 

রোববার দুপুরে গাজীপুর জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত-৪ এ ঘটনাটি ঘটে। 

ঘটনাটি ফাঁস হলে অস্ত্রটি জব্দ ও তার বিরুদ্ধে পুলিশ বাদি হয়ে সন্ত্রাসবিরোধী আইনে নতুন একটি মামলাও করেছে। পরে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। 

মনসুর আহমেদ, গাজীপুর সদর উপজেলার জয়দেবপুর থানার পিরুজালি গ্রামের আব্দুল করিমের ছেলে। এদিন পিস্তলটি তার কোমরে বাঁধা ও শার্টে ঢাকা ছিল।

গাজীপুর মহানগর পুলিশের উপ কমিশনার (উত্তর) মো. জাকির হাসান বলেন, জাল-জালিয়াতির মামলার আসামি মনসুর তার লাইসেন্স করা পিস্তল নিয়ে জামিনের জন্য আদালতে হাজির হন। কিন্তু বিচারক তার জামিনের আবেদন না মঞ্জুর করে জেল হাজতে পাঠানোর নির্দেশ দিলে আসামি তার সঙ্গে লাইসেন্স করা একটি পিস্তল আছে জানান। পরে পুলিশ দ্রুত পিস্তলটি জব্দ করে। 

গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রফিকুল ইসলাম বলেন, জেলার জয়দেবপুর থানার একটি মামলায় আদালতে হাজিরা দিতে গিয়েছিলেন মনসুর নামে ওই ব্যক্তি। এসময় বিচারক জামিন না-মঞ্জুরের আদেশ দিলে মনসুর তার সঙ্গে অস্ত্র আছে বলে জানান। বিষয়টি জানাজানি হলে আদালতের বিচারক ও আইনজীবীদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। পরে পুলিশ অস্ত্রটি জব্দ করেছে এবং আদালতের নির্দেশ অনুযায়ী তাকে জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে। 

তিনি আরও জানান, আদালতে অস্ত্র নিয়ে প্রবেশ করা বেআইনি, সেটা হোক বৈধ। তাই তার বিরুদ্ধে মহানগরের সদর থানায় পুলিশ বাদি হয়ে সন্ত্রাস বিরোধী আইনে একটি মামলা দায়ের করেছে। 

জয়দেবপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মুন্সি আবু কুদ্দস জানান, মনসুরের বিরুদ্ধে প্রতারণা ও জাল জালিয়াতিসহ মামলা রয়েছে। ওই মামলায় তিনি জামিনে ছিলেন। 


বাংলাদেশ জার্নাল/ওএফ