ঢাকা, সোমবার, ২৮ নভেম্বর ২০২২, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ আপডেট : কিছুক্ষণ আগে
শিরোনাম

জয়পুরহাটে পৃথক ঘটনায় তিনজন নিহত

  জয়পুরহাট প্রতিনিধি

প্রকাশ : ০২ অক্টোবর ২০২২, ১৭:৩৪

জয়পুরহাটে পৃথক ঘটনায় তিনজন নিহত

জয়পুরহাট প্রতিনিধি

জয়পুরহাটে পৃথক ঘটনায় তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে সদর উপজেলার তেঘর বিশা এলাকায় বিদ্যুৎস্পৃষ্টে সুমাইয়া নামে এক গৃহবধূ, আক্কেলপুর উপজেলার আমানপুর গ্রামে গ্যাস বড়ি খেয়ে হীরামুণি নামে এক গৃহবধূ ও কালাই উপজেলার সরাইল এলাকায় গাছের ডালের নিচে চাপা পড়ে শহিদুল ইসলাম নামে এক ব্যক্তির মৃত্যু হয়।

রোববার সকাল ও দুপুরে এসব ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন, সদর উপজেলার তেঘর বিশা গ্রামের রাজু হোসেনের স্ত্রী সুমাইয়া (৪০), কালাই পৌরসভার সড়াইল মহল্লার মৃত মফিজ উদ্দিনের ছেলে নিহত শহিদুল ইসলাম ও আক্কেলপুর উপজেলার আমানপুর গ্রামের মাসুদ রানার স্ত্রী হীরা মুণি (২৮)।

জয়পুরহাট সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সিরাজুল ইসলাম জানান, সদর উপজেলার তেঘর বিশা এলাকায় নিজ বাড়িতে অটোরিকশার ব্যাটারিতে বৈদ্যুতিক সংযোগ দিয়ে চার্জ দিচ্ছিলেন সুমাইয়ার স্বামী রাজু। এ সময় অসাবধানতাবশত সংযোগ করা একটি ছেঁড়া তারে সুমাইয়ার হাত লাগলে তিনি বিদ্যুতায়িত হয়ে গুরুতর আহত হন। এ সময় তাকে উদ্ধার করে জয়পুরহাট আধুনিক জেলা হাসপাতালে নেয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।

কালাই থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এস.এম মঈনুদ্দীন জানান, কালাই পৌর শহরের সরাইল এলাকার শহিদুল ইসলাম একটি বড় গাছে উঠে ঝড়ে পড়া গাছের মোটা ডাল কাটছিলেন। সে সময় গাছের ওপর দিক থেকে অন্য একটি শুকনো ডাল তার ওপর ভেঙে পড়ে। এ সময় গাছের ডালেই তিনি মারা যান এবং গাছেই লাশ ঝুলে থাকে। এ সময় স্থানীয়রদের কাছ থেকে ফায়ার সার্ভিসকে খবর দিলে তারা লাশ উদ্ধার করে।

অন্যদিকে আক্কেলপুর উপজেলার রায়কালী ইউনিয়নের আমানপুর এলাকায় এনজিওর ঋণের চাপে হীরামুণি নামে এক গৃহবধূ গ্যাস বড়ি খেয়ে আত্মহত্যা করেছে বলে জানা গেছে।

আক্কেলপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবু বকর সিদ্দিক বলেন, নিহত হীরামুণি ও তার স্বামী ঋণে জর্জরিত ছিলেন। ঋণ শোধ করতে না পারায় হীরামুণি গ্যাস বড়ি খেয়ে আত্মহত্যা করতে পারেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। এ ঘটনায় নিহতের স্বামী মাসুদ রানা বাদী হয়ে থানায় অপমৃত্যুর মামলা করেছেন।

বাংলাদেশ জার্নাল/এসকে

  • সর্বশেষ
  • পঠিত