ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৪ অক্টোবর ২০১৯, ৮ কার্তিক ১৪২৬ আপডেট : ১৬ মিনিট আগে English

প্রকাশ : ২৮ জানুয়ারি ২০১৯, ২০:৩২

প্রিন্ট

গাঁজা কম দেওয়ায় ‘৯৯৯’-এ নারীর ফোন

গাঁজা কম দেওয়ায় ‘৯৯৯’-এ নারীর ফোন
জার্নাল ডেস্ক

দশ হাজার টাকার বদলে দেয়ার কথা ছিল তিন কেজি গাঁজা, তবে তিনি পেয়েছেন এক কেজি। ক্ষিপ্ত হয়ে তিনি ফোন দিলেন পুলিশের জরুরি সহায়তা নম্বর ‘৯৯৯’-এ। পুলিশ এসে গাঁজাসহ তাকেই গ্রেপ্তার করে কারাগারে পাঠিয়েছে।

অবিশ্বাস্য মনে হলেও সোমবার এই ঘটনাটি ঘটেছে কুমিল্লার ব্রাক্ষণপাড়া বাজারে।

ওসি শাহজাহান কবির জানান, সোমবার ভোর ৬টার দিকে ‘৯৯৯’ থেকে ফোন দিয়ে থানার পুলিশকে জানানো ব্রাক্ষণপাড়া বাজারে একজন গাঁজা ব্যবসায়ী অবস্থান করছে। এরপরেই থানার এসআই জাকির হোসেনের নেতৃত্বে একটি টিম সেখানে পাঠানো হয়।

জাকির হোসেন বলছেন, আমি সবে রাতের ডিউটি শেষ করে থানায় ফিরেছি। ‘৯৯৯’ এর ফোন পেয়ে আবার ব্রাক্ষণপাড়া বাজারে ছুটলাম। সেখানে গিয়ে দেখি, একজন মধ্যবয়স্কা নারী দাঁড়িয়ে আছেন।

তার অভিযোগ, তিনি তিন কেজি গাঁজা কেনার জন্য একজন পাইকারি গাঁজা বিক্রেতাকে ১০ হাজার টাকা দিয়েছিলেন। কিন্তু ওই গাঁজা বিক্রেতা তাকে এক কেজি গাঁজা দিয়েছে। তাই তিনি ‘৯৯৯’ নম্বরে ফোন করে অভিযোগ করেছেন।

জাকির হোসেন বলছেন, ওই পাইকারি বিক্রেতাকে তারা পাননি। তবে এক কেজি গাঁজাসহ পাওয়ায় ওই নারীকে গ্রেপ্তার করে থানায় নিয়ে আসা হয়। মাদক দ্রব্য আইনে মামলার পর তাকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

‘আমি তার কাছে জানতে চাইলাম, গাঁজা বেচা-বিক্রি করা তো অবৈধ কাজ, আপনি সেটা পুলিশের নম্বরে ফোন করলেন কেন। ওই নারী বলেছেন, তাকে তিন কেজির কথা বলে এক কেজি দেয়ায় রাগ করে ওই পাইকারি বিক্রেতাকে পুলিশে ধরিয়ে দেয়ার জন্য তিনি ওই কাজ করেছেন।’

পুলিশ জানিয়েছে, গ্রেপ্তারকৃত নারী নারায়ণগঞ্জের বাসিন্দা। তবে গাঁজা কেনার জন্য এর আগেও তিনি কয়েকবার ব্রাক্ষণপাড়ায় এসেছিলেন বলে জিজ্ঞাসাবাদে জানিয়েছেন। পাইকারি ওই গাঁজা বিক্রেতাকে খোঁজা হচ্ছে বলে পুলিশ জানিয়েছে।

আরএ

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত