ঢাকা, শুক্রবার, ১৮ অক্টোবর ২০১৯, ২ কার্তিক ১৪২৬ আপডেট : ১ ঘন্টা আগে English

প্রকাশ : ১২ মার্চ ২০১৯, ১৬:০৮

প্রিন্ট

এবার উত্তাল চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়

এবার উত্তাল চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়
চবি প্রতিনিধি

ঢাকসু নির্বাচনের ফলাফলকে কেন্দ্র করে উত্তাল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়। যার ঢেউ এসে লেগেছে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়েও। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ডাকা ছাত্র ধর্মঘটের সমর্থনে প্রগতিশীল ছাত্রজোট চবি ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ মিছিল বের করে। আর তাতে ক্ষমতাসীনদের ছাত্রসংগঠন ছাত্রলীগের দুই পক্ষের হামলায় ১০ নেতাকর্মী আহত হয়েছে বলে দাবি বামপন্থীদের। মঙ্গলবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগারের সামনে এ ঘটনা ঘটে।

আহতরা হলেন- সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টের চবি শাখার সভাপতি আবিদ খন্দকার, সাধারণ সম্পাদক সাইমা আক্তার নীপা ও সাংগঠনিক সম্পাদক জান্নাত মাওয়া মুমু, চবি ছাত্র ইউনিয়নের সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবা জাহান রুমি এবং অর্থনীতি বিভাগের ২০১৪-১৫ শিক্ষাবর্ষের ছাত্র রাজেশ্বর দাশগুপ্ত, ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের সংস্কৃত বিভাগের জনি কান্ত রায় ও নাট্যকলা বিভাগের মুশফিক উদ্দিন ওয়াসি। আহত আরেকজনের নাম পাওয়া যায়নি।

বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে জানা যায়, হামলায় জড়িত পক্ষ দুটি হলো একাকার ও বাংলার মুখ। দুটি পক্ষই সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দিনের অনুসারী।

হামলার বিষয়ে বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি ধীষণ প্রদীপ চাকমা বলেন, ‘ছাত্রলীগের এ ধরনের হামলার নিন্দা জানাই। বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের কাছে এ ঘটনার বিচার চাই।’

সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের সাংগঠনিক সম্পাদক জান্নাত জানান, অনিয়মের মাধ্যমে ডাকসু নির্বাচন হয়েছে। এর প্রতিবাদ জানাতে দুপুরে বিক্ষোভ মিছিলের আয়োজন করা হয়েছিল। মিছিলটি কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগারের সামনে আসতেই ছাত্রলীগ হামলা চালায়।

একাকারের নেতা ইমাম উদ্দিন ফয়সাল বলেন, প্রধানমন্ত্রী ও ছাত্রলীগের বিরুদ্ধে তাঁরা কটূক্তি করেছেন। এ কারণে জুনিয়ররা প্রতিবাদ জানিয়েছেন।

বিশ্ববিদ্যালয় পুলিশ ফাঁড়ির দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ইনচার্জ) মো. আখতারুজ্জামান হামলার বিষয় নিশ্চিত করে জানান, সামান্য ঝামেলা হয়েছিল, পরিস্থিতি এখন নিয়ন্ত্রণে।

ডিপি/

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত