ঢাকা, রবিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৭ আশ্বিন ১৪২৬ আপডেট : ১ মিনিট আগে English

প্রকাশ : ১১ জুলাই ২০১৯, ১৯:২৭

প্রিন্ট

শিক্ষার্থীদের মানববন্ধনে পুলিশের লাঠিচার্জ

শিক্ষার্থীদের মানববন্ধনে পুলিশের লাঠিচার্জ
লাঠিচার্জে আহত এক শিক্ষার্থী
ময়মনসিংহ প্রতিনিধি

ত্রিশাল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আব্দুল্লাহ আল জাকিরের প্রচেষ্টায় মাত্র ৬-৭ মাসের ব্যবধানে পাল্টে যায় সরকারি নজরুল একাডেমির পরিবেশ ও লেখাপড়ার মান। নিয়মিত অ্যাসেম্বলি, সফটওয়্যারের মাধ্যমে প্রতিদিনের আপডেট, ডিজিটাল হাজিরা, পাঠ্য বইয়ের পাশাপাশি ইংরেজিতে দক্ষ করতে আলাদা ক্লাস, শিক্ষকদের যথাযথ উপস্থিতি, অভিভাবক সমাবেশ, সরকারি নীতিমালা বাস্তবায়ন ইত্যাদি।

বিদ্যালয়ের সু-শৃংখল ওই পরিবেশের ফলে অভিভাবকসহ শিক্ষার্থীরাও ছিলেন উৎফুল্ল। হটাৎ গত ৮ জুলাই ইউএনও আব্দুল্লাহ আল জাকিরের বদলির অর্ডার আসে। এ খবর বিদ্যালয়ে ছড়িয়ে পড়লে বিদ্যালয়ের পরিবেশ ও লেখাপড়ার মান আগরে দিকে ফিরে যাওয়ার আশঙ্কায় ইউএনওর বদলি ঠেকাতে মানববন্ধনের ঘোষণা দেয় শিক্ষার্থীরা।

বৃহস্পতিবার সকালে ত্রিশাল বাসস্ট্যান্ড এলাকায় মানববন্ধন করেন শিক্ষার্থীরা। অভিযোগ উঠেছে, মানববন্ধন চলাকালে পুলিশ আচমকা তাদের ওপর লাঠিচার্জ করে। এ সময় আহত হন অন্তত ১০-১৫ শিক্ষার্থী।

এ সময় নিশাত সরকার, সাব্বির হোসেন ও শুভসহ ১০-১৫ শিক্ষার্থী আহত হন। আহতদের মধ্যে নিশাত সরকার ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ও ৮ম শ্রেণির শিক্ষার্থী সাব্বির হোসেন (১২) ত্রিশাল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন। বাকিরা বিভিন্ন ফার্মেসিতে প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন বলে জানা যায়।

এ ব্যাপারে বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক আতিকুল ইসলাম জানান, শিক্ষার্থীদের মানববন্ধনের বিষয়টি তিনি জানতেন না।

শিক্ষার্থীদের ওপর লাঠিচার্জের বিষয়ে ওসি আজিজুর রহমান জানান, মানববন্ধনে শিক্ষার্থীদের ওপর পুলিশ লাঠিচার্জ করেনি। যখন শিক্ষার্থীরা মহাসড়ক অবরোধ করতে চেয়ে রাস্তায় বসে পড়ে তখন তাদেরকে সরিয়ে দেয়া হয়।

বাংলাদেশ জার্নাল/আরকে

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত