ঢাকা, শুক্রবার, ১৯ আগস্ট ২০২২, ৪ ভাদ্র ১৪২৯ আপডেট : ৪ মিনিট আগে

‘ওটিটি দেখে টেলিভিশন ওনার্সদের বোঝা উচিত যে তাদের এগিয়ে যাওয়া দরকার’

  ইমরুল নূর

প্রকাশ : ৩০ জুন ২০২২, ১৮:০৩  
আপডেট :
 ৩০ জুন ২০২২, ১৮:১৮

‘ওটিটি দেখে টেলিভিশন ওনার্সদের বোঝা উচিত যে তাদের এগিয়ে যাওয়া দরকার’
ইমরুল নূর

ছোটবেলা থেকেই নাচে পারদর্শী, সেই সঙ্গে পটু উপস্থাপনাতেও। অভিনয়েও কম যান না। একাধারে নৃত্যশিল্পী, উপস্থাপিকা, অভিনেত্রী নাজিবা বাশার। এর বাইরেও তার আরেকটি পরিচয়, তিনি একজন সাংবাদিক। দেশের প্রথম সারির একটি গণমাধ্যমে দীর্ঘ ১ যুগ ধরে কর্মরত রয়েছেন তিনি।

ঈদে মুক্তি পেতে যাচ্ছে নাজিবা অভিনীত নতুন ওয়েব সিরিজ ‘কাইজার’। তানিম নূর পরিচালিত এ সিরিজটিতে তিনি অভিনয় করেছেন তানিয়া চরিত্রে, যিনি পেশায় একজন ডাক্তার। গতকাল বুধবার রাজধানীর একটি কনভেনশন সেন্টারে এক বিশেষ আয়োজনের মধ্য দিয়ে উন্মোচিত হয় সিরিজটির ট্রেলার। সেখানে নাজিবাসহ উপস্থিত ছিলেন টিমের পরিচালক ও কলাকুশলীবৃন্দ।

‘কাইজার’ প্রসঙ্গে নাজিবা বাশার বলেন, ‘গল্পে তানিয়া হচ্ছে কাইজারের গেমিং পার্টনার অনন্তর বড় বোন। সেই সূত্রেই কাইজারের সঙ্গে তানিয়ার পরিচয় এবং সেটা খুবই রহস্যময়। এর বেশি এখন না বলাই ভালো, দর্শকরা দেখুক আগে।’

কাজের অভিজ্ঞতা জানাতে গিয়ে ‘মানি হানি’ খ্যাত এ অভিনেত্রী বলেন, ‘এই টিমের সঙ্গে কাজের অভিজ্ঞতা খুবই দারুণ। কারণ আমি যখন ওটিটি প্লাটফর্মে কাজ শুরু করি তখন থেকেই ডোপ প্রোডাকশনের সঙ্গে ছিলাম, যার কারণে এটাকে আমার একটা পরিবার বলেই মনে হয়। এই টিমটার সঙ্গে খুবই আরামে এবং নিশ্চিন্তে কাজ করতে পারি। তানিম ভাই থেকে শুরু করে পুরো টিমের উপরে আমার অনেক ভরসা আছে, তারা এত সুন্দর করে গোছানোভাবে কাজ করে, যা সত্যি মুগ্ধকর।

আর আফরান নিশোর সঙ্গে কাজের অভিজ্ঞতা সবসময়ই দারুণ। তার মত একজন শিল্পীর সঙ্গে যখন স্ক্রিণ শেয়ার করা মানে হচ্ছে নিজের অভিনয়টা অটোমেটিক্যালি ভালো হয়ে যাওয়া। সে স্ক্রিণে থাকলে তার সহশিল্পীর অভিনয় ভালো না হয়ে উপায় নেই। এটা খুবই ভালো একটা দিক এবং প্রশংসনীয়। আমার সঙ্গে নিশোর এটা দ্বিতীয় কাজ হলেও এই টিমের প্রায় সবার সঙ্গেই প্রথম কাজ। প্রথমবার কাজ করেও সবাই নিশোর সঙ্গে এতটা কানেক্টেড এবং কমফোর্টেবল, যেটা সত্যি চমৎকার। অবশ্য এর পুরো ক্রেডিটটাই নিশোর প্রাপ্য।’

একজন অভিনয়শিল্পী এবং সাংবাদিক হিসেবে ওটিটির সম্ভাবনা কতটুকু দেখতে পান আপনি? এমন প্রশ্নে নাজিবার উত্তর, ‘আসার পর থেকে তো ওটিটির সম্ভাবনাই দেখতে পাচ্ছি আমরা। যখন থেকে একের পর এক কন্টেন্ট আসছে ততই আশা বাড়ছে আমাদের। পরিচালক, স্ক্রিপ্টিং, কাস্টিং সব দিক থেকে এক ধাপ এগিয়ে যাচ্ছে সবার থেকে। যেটা খুবই ভালো দিক। তবে একটা ভয় তো থেকেই যায় যে ওটিটির রেগ্যুলেশনে যদি কোন পরিবর্তন আসে তাতে আবার না সেটা টেলিভিশনের ফরম্যাটে চলে যায়! ওই পরিবর্তনগুলো যেন না আসে।’

এখন সব শিল্পী-নির্মাতারা ওটিটি প্লাটফর্মের দিকেই ঝুঁকছে বেশি। এতে করে টেলিভিশন প্রোডাকশনের ওপর কোন নেগেটিভ প্রভাব পড়বে বলে মনে করেন কি? এমন প্রশ্নে অভিনেত্রীর সহজাত উত্তর, ‘আমার মনে হয়, যদি নেগেটিভ প্রভাব পড়েও থাকে তবে সেটা পড়া উচিত। কারণ, টেলিভিশন চ্যানেলের অবস্থা বর্তমানে এমন হয়ে দাঁড়িয়েছে যে পেছন থেকে কেউ ধাক্কা না দিলে সেটা ঠিক হওয়ার কোন পথ নেই। এখন যে সব শিল্পী কিংবা নির্মাতারা ওটিটিতে কাজ বাড়িয়ে দিচ্ছেন, সেটা যেন টেলিভিশন চ্যানেলের মানুষদের অনুপ্রেরণা হিসেবে কাজ করে। তাহলে তারাও ওটিটির মত করে কাজের চিন্তা-ভাবনা করবে। তাদেরও এটা মনে হওয়া উচিত যে, আমাদেরও এখন এক ধাপ এগিয়ে যাওয়ার সময় এসেছে এবং উন্নতির সময় এসেছে। এইটুক তো আশা করতেই পারি যে, ওটিটি প্লাটফর্মের উন্নতির সাথে সাথে টেলিভিশন ওনার্সরাও বুঝুক যে, তাদের মুভ অন করার সময় এসেছে।’

ওয়েবের বাইরেও আসছে ঈদে টেলিভিশনের পর্দায় দেখা দেবেন নাজিবা বাশার। এবারের ঈদে চারটি নাটকে অভিনুয় করবেন তিনি। এরমধ্যে শিহাব শাহীন পরিচালিত দুটি নাটকের শুটিং শেষ করেছেন এবং সামনে আরও দুজন পরিচালকের দুটি নাটকে অভিনয় করবেন।

নাটক, বিজ্ঞাপন, ওয়েবের বাইরে তাকে সিনেমাতেও দেখা গিয়েছে। সর্বশেষ তিনি অভিনয় করেছেন শিহাব শাহীন পরিচালিত ‘যদি কিন্তু তবুও’ সিনেমায়। এর আগে নাজিবা অভিনীত সিনেমার মধ্যে রয়েছে নুরুল মিয়া ও তার বিউটি ড্রাইভার, বেঙ্গলি বিউটি, গহীন বালুচর, যদি একদিন ও রূপসা নদীর বাঁকে ইত্যাদিতে।

নাচের শিল্পী হলেও এখন তাকে খুব একটা অনুষ্ঠানে দেখা যায় না, সেই সঙ্গে উপস্থাপনাতেও। এর কারণ হিসেবে তিনি জানান, সাংবাদিকতা পেশার কারণে বিকেলের পর তাকে অফিস করতে হয় আর নাচের অনুষ্ঠান কিংবা রিহার্সেলগুলো বেশিরভাগ সময়েই সন্ধার পর হয়, যার কারণে সময় করে উঠতে পারেন না।

সিনেমা নিয়ে তার ভাষ্য, আমি সবসময় ভালো গল্প এবং চরিত্রের জন্য মুখিয়ে থাকি। পছন্দ নাহলে সেটা করতে ইচ্ছে করে না আমার।

বাংলাদেশ জার্নাল/আইএন

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত