ঢাকা, মঙ্গলবার, ০৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২৪ মাঘ ১৪২৯ আপডেট : ২ মিনিট আগে
শিরোনাম

অন্য কেউ করলেই যে আমাকেও করতে হবে, বিষয়টা এমন না: মুমতাহিনা টয়া

  ইমরুল নূর

প্রকাশ : ১৯ নভেম্বর ২০২২, ১৬:২৮  
আপডেট :
 ১৯ নভেম্বর ২০২২, ১৬:৫২

অন্য কেউ করলেই যে আমাকেও করতে হবে, বিষয়টা এমন না: মুমতাহিনা টয়া
অভিনেত্রী, নৃত্যশিল্পী ও লাক্সতারকা মুমতাহিনা টয়া
ইমরুল নূর

মাঝে কাজ থেকে কিছুটা বিরতি নিয়েছিলেন, ফের নতুন অবতারে পর্দায় হাজির হন ছোট পর্দার জনপ্রিয় অভিনেত্রী, নৃত্যশিল্পী ও লাক্সতারকা মুমতাহিনা টয়া। এরমধ্যে বেশকিছু একক নাটকের কাজ শেষ করেছেন ভালোবাসা দিবসের। অংশ নিয়েছেন বিজ্ঞাপনেও। সেই ধারাবাহিকতায় নাম লিখিয়েছেন ওটিটি প্লাটফর্মেও। সদ্যই ওটিটি প্লাটফর্ম বিঞ্জের সিরিজ ‘ইনফিনিটি’র দ্বিতীয় কিস্তির শুটিং শেষ নিয়েছেন।

সিরিজটি সম্পর্কে মুমতাহিনা টয়ার ভাষ্য, ‘সিরিজটি গোয়েন্দা ভিত্তিক। এর প্রথম কিস্তি দর্শকরা পছন্দ করেন যার কারণে এবার দ্বিতীয় কিস্তি নির্মিত হয় যেখানে আমাকে দেখা যাবে এজেন্ট সামিয়া চরিত্রে। প্রথম কিস্তি যেখানে শেষ হয়েছে সেখান থেকেই বাকি অংশের কাজ শুরু হয়। এই কিস্তিতে কেইস সলভ করার পাশাপাশি কিছু চরিত্রের ব্যক্তিগত জীবনও পর্দায় দেখা যাবে। সে হিসেবে এখানে আমার সঙ্গে জুটি বেঁধেছেন শরিফুল রাজ। খুব সুন্দরভাবেই কাজটি শেষ হয়েছে। আশা করছি এবারের কিস্তি দর্শকদের অনেক ভালো লাগবে।’

একটা সময় টিভি খুললেই টয়াকে দেখা যেত পর্দায়। সে অনুযায়ী এখন কাজ অনেকটা কমিয়ে দিয়েছেন। এর কারণ ব্যাখ্যা করে এই লাক্সতারকা বলেন, ‘সময়ের সঙ্গে তো অনেক কিছুই বদলায়, পরিবর্তন আসে। আগে শুধু টেলিভিশনের জন্য কাজ করা হতো আর এখন তো নতুন মাধ্যম ওটিটি প্লাটফর্ম এসেছে। অনেক ভালো ভালো কাজ হচ্ছে। ক্যারিয়ারের শুরু থেকে প্রায় সব ধরণের কাজই করেছি বলা যায়। এরপর মনে হলো, সময় হয়েছে বেছে বেছে কাজ করার। কাজের সংখ্যা না বাড়িয়ে মানসম্মত অল্প কিছু কাজের সঙ্গে যুক্ত পারলেও আমি খুশি। অনেক বেশি কাজ করতে হবে, বিষয়টা এমন নয়। যার কারণে কাজের পরিমাণ কমিয়ে দিয়েছিলাম। এখন তো কাজ করছি, চেষ্টা করছি ভালো কিছুর সঙ্গে যুক্ত থাকতে।’

তিনি আরও বলেন, ‘টেলিভিশন বা ইউটিউবে এখন যে পরিমাণে অশ্লীল কনটেন্ট তৈরি হচ্ছে, সেসবের সঙ্গে নিজেকে কখনোই যুক্ত রাখতে চাই না। আমার কাছে অনেক ধরণের স্ক্রিপ্টই আসে কিন্তু সেসবে আমার মন টানে না। আর এখন তো ভিউ একটা ফ্যাক্ট। প্রযোজকরা কনটেন্টে লগ্নি করেন, তারা স্বভাবতই চাইবেন তাদের লগ্নিকৃত টাকা ফেরত আসুক। যার কারণে হয়তো এসব অনেক কনটেন্ট তৈরি হচ্ছে। আমার মতে, তাদেরও ভাবা উচিত এতে করে ইন্ডাস্ট্রিটা কোথায় গিয়ে পৌঁছাচ্ছে!

অন্য কে কি করছে, সেসব নিয়ে আমি কিছু বলতে চাই না। আমি শুধু আমার জায়গা থেকে নিজস্ব ভাবনাটা শেয়ার করতে পারি। অন্য কেউ করলেই যে আমাকেও করতে হবে, বিষয়টা এমন না। আমি সেসব কাজে নিজেকে রাখতে চাই না। আমার যে কয়েকজনই ভক্ত আছেন তাদেরকে আমি হতাশ করতে চাই না, তাদেরকে ভুল মেসেজ দিতে চাই না কখনো।’

‘অনেকেই মাসের ২৫ থেকে ৩০ দিন কাজ করছেন, সেটা তাদের ব্যাপার। আমি অল্পেই সন্তষ্ট তবে সেই অল্পটা অবশ্যই ভালো কিছু হতে হবে। আমি যেখানে যে অবস্থানে আছিম এতেই অনেক খুশি। তাছাড়া এখন সবাই ওটিটির দিকেই ঝুঁকছেন বেশি কারণ সেখানে বিস্তর সুযোগ রয়েছে নিজেকে উপস্থাপন করার। টেলিভিশনের অনেক শিল্পী-ই ওটিটিমুখী, হওয়াটাই স্বাভাবিক। আমিও এই প্লাটফর্মে ভালো কাজের অপেক্ষায় আছি, নিজেকে নতুনভাবে উপস্থাপনের। পাশাপাশি বিজ্ঞাপন তো করছি-ই।’- যোগ করেন মুমতাহিনা টয়া।

বাংলাদেশ জার্নাল/আইএন

  • সর্বশেষ
  • পঠিত