ঢাকা, মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারি ২০২৩, ১৭ মাঘ ১৪২৯ আপডেট : কিছুক্ষণ আগে
শিরোনাম

শ্রীলঙ্কায় খাদ্য সংকটের বিষয়ে সতর্ক করেছে জাতিসংঘ

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশ : ০৮ নভেম্বর ২০২২, ২০:০০  
আপডেট :
 ০৮ নভেম্বর ২০২২, ২০:০৯

শ্রীলঙ্কায় খাদ্য সংকটের বিষয়ে সতর্ক করেছে জাতিসংঘ
হত দরিদ্রদের বিনামূল্যে বিস্কুটের প্যাকেট দেয়া হচ্ছে। ফাইল ছবি
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

অর্থনীতিক সংকটে বিপর্যস্ত শ্রীলঙ্কায় ক্রমবর্ধমান খাদ্য সংকট সম্পর্কে সতর্ক করেছে জাতিসংঘ। জাতিসংঘ জানিয়েছে, দেশটিতে জরুরী মানবিক সাহায্যের প্রয়োজন এমন লোকের সংখ্যা দ্বিগুণ হয়ে ৩৪ লাখ হয়েছে।

শ্রীলঙ্কা ১৯৪৮ সালে ব্রিটেনের কাছ থেকে স্বাধীনতার পর থেকে সবচেয়ে খারাপ অর্থনৈতিক সংকটের মুখোমুখি এবং গত বছর থেকে তীব্র মুদ্রাস্ফীতি, জ্বালানি সংকটে ভুগছে। একইসঙ্গে এপ্রিলের মাঝামাঝি ৫২ বিলিয়ন ডলারের বাহ্যিক ঋণ খেলাপি হয়েছে দেশটি। এই পরিস্থিতিতে জাতিসংঘের সংস্থাগুলি চলতি বছরের জুন মাসে অনুমান করেছিল, শ্রীলঙ্কার প্রায় ২ কোটি ২০ লাখ জনসংখ্যার মধ্যে ১৭ লাখ মানুষের সাহায্য প্রয়োজন। তবে এই সংখ্যা কয়েকে মাসের ব্যবধানে দ্বিগুণ হয়ে গেছে।

মঙ্গলবার কলম্বোতে জাতিসংঘের সংস্থাগুলি একটি যৌথ বিবৃতিতে বলেছে, তারা অভাবী লোকদের খাওয়ানোর জন্য ৭৯ মিলিয়ন ডলার সংগ্রহ করেছে, কিন্তু দরিদ্র মানুষের সংখ্যা বৃদ্ধির অর্থ হল তাদের অতিরিক্ত ৭০ মিলিয়ন ডলার প্রয়োজন।

বিবৃতিতে বলা হয়েছে, পরপর দুই মৌসুমের দুর্বল ফসল, বৈদেশিক মুদ্রার ঘাটতি এবং পরিবারের ক্রয় ক্ষমতা হ্রাসের কারণে শ্রীলঙ্কায় খাদ্য নিরাপত্তাহীনতা নাটকীয়ভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে ।

জাতিসংঘ বলেছে, তার সংশোধিত পরিকল্পনার লক্ষ্য হল গর্ভবতী মা এবং স্কুল শিশুসহ ২১ লাখ মানুষকে খাওয়ানো এবং ১৫ লাখ কৃষক ও জেলেদের জীবিকা সহায়তা প্রদান করা।

বিবৃতিতে আরও বলা হয়, দক্ষিণ এশিয়ার দেশটিতে দারিদ্র্যের হার গত বছরের ১৩.১ শতাংশ থেকে বেড়ে এ বছর ২৫.৬ শতাংশে দাঁড়িয়েছে।

উল্লেখ্য, উচ্চ মূল্য এবং খাদ্য ও ওষুধের ঘাটতির বিরুদ্ধে কয়েক মাস বিক্ষোভের ফলে জুলাই মাসে প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপাকসের পতন ঘটে। দেশটির বর্তমান প্রেসিডেন্ট রনিল বিক্রমাসিংহের সরকার তীব্র অর্থনীতিক সংকট মোকাবেলায় এখনও লড়াই করে যাচ্ছে। এই প্রচেষ্টায়, দেশটি ২.৯ বিলিয়ন ডলারের ঋণের জন্য আইএমএফের সাথে আলোচনা করছে।

সূত্র: এএফপি, ডেইলি মিরর

বাংলাদেশ জার্নাল/এমআর

  • সর্বশেষ
  • পঠিত