ঢাকা, শুক্রবার, ২২ নভেম্বর ২০১৯, ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৬ আপডেট : ৬ মিনিট আগে English

প্রকাশ : ০৫ নভেম্বর ২০১৯, ২০:০৫

প্রিন্ট

বিষাদের পুঁথি-২

বিষাদের পুঁথি-২
মোস্তফা কামাল পাশা

রাইফা ছোট্ট সোনা মা-মনি!

তোমার খুনের ৪৪৪ তম দিনে বুক কাঁপে মা

মানবিক পেশা সব, দানব তাণ্ডবে ছারখার!

লোভ-ভোগের আগুনে পুড়ছে দেশ-মা- মাটি

দানবেরা মিডিয়া কাঁপায়-দাপায়!

দেশ-বিদেশের বাহারি পিক ছাড়ে!

আর লা.ক.গুণে! এইতো দু'দিন আগের

ডাস্টবিন চাঁটা নেড়িরা আজ মস্ত সাধু মহারাজ!

উগলায়-জয় বাংলা, আলহামদুলিল্লাহ-

যাযাকাল্লাহ বা শ্রী জয়ারাম!

নীতিকথা আর সুবচন চিপে চাটনি বানিয়ে

চকাম চকাম খায়!

আলটাকরায় তৃপ্তির টকাশ টকাশ শব্দ তুলে

নাচায় ভূড়ি তলপেট!

ওদের ভূড়ির নিচে লুকানো একখান টাকি

মাঝে মাঝে চুলকায়-ঠোকরায় অন্তর্বাস।

পাগল হয়ে ছোটে অভিজাত পাড়া/বাগানবাড়ির

'সেক্স N ড্রাগ' পার্টিতে।

কচি মাংসের ভোজে খিদে মেটাতে যায়-

ভূড়ির সোহাগি মেদফোমে বমি মাখায়!

অতৃপ্তির গোপন লালা মোছে খুণরাঙা

টাকার নরম টিস্যুতে।

বার টেন্ডার, সেন্ট্রি আর্দালি একপ্রস্থ টাওয়েল

পেঁচিয়ে হাইব্রিড গাড়িতে হাইব্রিড বস্তাখান

যতনে শোয়ায়! এরাই খুনি, গুণী, অভিজাত,

ভিআইপি যত্তোসব!

তোমার খুণরাঙা হাতের মেহেদি, ওদের

ম্যান্টলপিসের ট্রফি হয়ে খুনের নামতা

শোনায় সগৌরবে!

আঁধারের গোপন সুড়ঙ্গেও ছোট্ট আলোক ঝলকায়!

নুশরাত খুনীরা পায় চরম সাজা,ফাহদ খুনীরাও

দ্রুত ধরা খায়! আমরা অপেক্ষার পিদিম হাতে!

তবুও মা, এদেশ, মাটি এখনো পুড়ছেই-পুড়ছে-

বুক, উরুসন্ধি-তলপেট সবকিছু।

শোক-শোক-শোক শুধুই শোকের মাতম!

শোকের জ্বলন্ত চিতায় রাইফা

সোনামনির নাম নতুন বারুদ গুঁজে দেয়।

ছিটকায় আগুন, গনগনে ফুলকির হলকায়

কাঁদে চরাচর! দূরে রাতজাগা ভুতুম প্যাঁচা

কারবালা প্রান্তরে ইমাম হোসেন খুনের পুঁথি

পড়ে করুণ সূরে।

বলতে পারো মা-

আর কতোদিন-কতো বছর-কতো যুগ

তোমার সুবিচার দোল খাবে-দাঁতালের রশিতে!

কতো চলবে বিষাদের টানা পুঁথিপাঠ।

বাংলাদেশ জার্নাল/আরকে

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত