ঢাকা, শুক্রবার, ০২ অক্টোবর ২০২০, ১৮ আশ্বিন ১৪২৭ আপডেট : ৩৪ মিনিট আগে English

প্রকাশ : ১০ আগস্ট ২০২০, ০১:২৫

প্রিন্ট

রোগীদের জন্য নতুন অ্যাপ আনলো ‘এনজাইম’

রোগীদের জন্য নতুন অ্যাপ আনলো ‘এনজাইম’
নিজস্ব প্রতিবেদক

দেশের বাজারে বেশ জোরালোভাবে টেলিমেডিসিন সার্ভিস নিয়ে কিছুদিন আগে যাত্রা শুরু করে কৃত্তিম বুদ্ধিমত্তাযুক্ত টেলিমেডিসিন সার্ভিস ‘এনজাইম’।

কোম্পানিটি রোগীদের জন্য বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের সাথে অনলাইন অ্যাপয়েন্টমেন্ট ও বিল্ট-ইন ভিডিও কনসাল্টেশন-এর মাধ্যমে চিকিৎসা সহায়তা দেয়ার সার্ভিস প্রদান করছে। সেবা গ্রহণকারীরা অনলাইনে চিকিৎসকের সাথে রিপোর্ট শেয়ারিং, ই-প্রেসক্রিপশন গ্রহণ, হেলথ রেকর্ড সংরক্ষণ এবং অনলাইনেই চিকিৎসকের ভিজিটিং ফি প্রদান করতে পারবেন।

এনজাইমের উদ্যোক্তারা জানান, এনজাইমের ওয়েবসাইটে ইতোমধ্যে শতাধিক অভিজ্ঞ এবং বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক নিজেদের নির্ধারিত ভিজিটিং ফি দিয়ে স্বাস্থ্য সেবা দিয়ে যাচ্ছেন এবং এই সংখ্যা প্রতিদিন বৃদ্ধি পাচ্ছে।

তাদের অ্যাপ থেকে দেখা যায়- এখানে প্রায় সকল রোগের জন্য অভিজ্ঞ এবং বিশেষজ্ঞ ডাক্তার নিবন্ধিত রয়েছেন। সর্বনিম্ন ২০০ টাকা থেকে সর্বোচ্চ ১০০০ টাকা ভিজিটিং ফি নিয়ে তারা নিয়মিত চিকিৎসা দিচ্ছেন বলেও অ্যাপে দেখা যায়।

এনজাইম থেকে জানানো হয়, চিকিৎসকের নাম, কোন এলাকায় সেবা দিচ্ছেন, কোন বিষয়ে বিশেষজ্ঞ এবং ভিজিটিং ফি-র উপরে ভিত্তি করে রোগীরা এই অ্যাপের মাধ্যমে চিকিৎসকদের খুঁজে নিতে পারবেন খুব সহজেই।

এনজাইমের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) নাজমুল হাসান বলেন, ‘আলহামদুলিল্লাহ, আমাদের প্রত্যাশার চাইতে অনেক দ্রুত আমরা সকল স্তরের মানুষের নিকট বিশ্বাসযোগ্যতা পাচ্ছি। আমাদের সম্মানিত চিকিৎসকগণ প্রতিনিয়ত আমাদের সাথে নিবন্ধন করছেন। প্রতিটি অ্যাপয়েন্টমেন্টের পরে আমরা চিকিৎসক এবং রোগী এই দুই পক্ষকেই অবহিত করে পুরো প্রক্রিয়াটি নিশ্চিত করছি। অ্যাপয়েন্টমেন্ট সংশ্লিষ্ট যেকোনো টেকনিক্যাল সহায়তা প্রদানের জন্য আমাদের ডেডিকেটেড সাপোর্ট টিম চিকিৎসক এবং রোগী উভয়কেই সার্বক্ষণিক সহায়তা দিয়ে যাচ্ছে।’

এনজাইমের প্রধান প্রযুক্তি বিষয়ক কর্মকর্তা (সিটিও) আশিকুর ইসলাম বলেন, এনজাইমের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধনের সময় থেকেই বেটা ভার্সন হিসেবে পেশেন্ট কেয়ার (Enzaime Patient Care App) অ্যাপটি চালু ছিল। এরপরে রোগীদের চাহিদা অনুযায়ী বিভিন্ন নতুন ফিচার যুক্ত করে এবং কিছু ত্রুটির সমাধান করে সেটির একাধিক আপডেট এসেছে। আমাদের টেকনিক্যাল টিম সার্বক্ষণিকভাবে অ্যাপের উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছে যাতে করে যেকোনো সমস্যাকে আমরা তাৎক্ষণিক ভাবে সমাধান করতে পারি।

গুগল প্লে স্টোর থেকে সরাসরি অ্যাপটি ডাউনলোড করা যাবে। অথবা ওয়েবসাইটে গেলেও অ্যাপটি পাওয়া যাবে।

বাংলাদেশ জার্নাল/এইচকে

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত