ঢাকা, শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ৪ শ্রাবণ ১৪৩১ আপডেট : ১৬ ঘন্টা আগে
শিরোনাম

সাঈদীর মৃত্যু ও বিচিত্রার লেখা নিয়ে আসিফ নজরুলের স্ট্যাটাস

  জার্নাল ডেস্ক

প্রকাশ : ১৫ আগস্ট ২০২৩, ১৮:৪৫  
আপডেট :
 ১৫ আগস্ট ২০২৩, ১৯:৩৮

সাঈদীর মৃত্যু ও বিচিত্রার লেখা নিয়ে আসিফ নজরুলের স্ট্যাটাস
ড. আসিফ নজরুল (বাঁয়ে) ও দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদী (ডানে)। ছবি- সংগৃহীত

সোমবার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে আমৃত্যু দণ্ডাদেশপ্রাপ্ত জামায়াত নেতা দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদী। তার মৃত্যু ও তিন দশকেরও বেশি সময় আগে সাপ্তাহিত বিচিত্রায় প্রকাশিত হয়েছিল ‘সাঈদী সমাচার: একজন ধর্মব্যবসায়ীর উত্থান' শিরোনামের প্রতিবেদন নিয়ে নিজের ব্যক্তিগত ফেসবুক আইডিতে স্ট্যাটাস দিয়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের অধ্যাপক ড. আসিফ নজরুল।

মঙ্গলবার (১৫ আগস্ট) দুপুর পৌনে ৩টার দিকে ওই পোস্ট দেন তিনি।

ফেসবুক পোস্টে ড. আসিফ নজরুল লিখেছেন, “আমি যুদ্ধাপরাধীদের বিচার চেয়েছিলাম, এ’নিয়ে প্রথম আলো-তে অনেক লিখেছি তখন। তবে আমি মনে করতাম (এখনও করি), ফাঁসীই দিতে হবে শাহবাগের এই চাপ ছিল ন্যায়বিচারের চরম পরিপন্থী। তাছাড়া, বিচার চলাকালে সংবিধান ও আইন সংশোধন করা, অভিযুক্তের পক্ষের স্বাক্ষীকে গুম করা এবং যুদ্ধাপরাধ (আসলে মানবতা বিরোধী অপরাধ) বিচারের প্রক্রিয়া নিয়ে স্কাই-পি কেলেঙ্কারীতে ফাস হওয়া তথ্য - ইত্যাদি নানা বিষয়ের কারণে বিচার নিয়ে অনেক বিতর্ক ছিল।

এসব বিষয়ে কথা বলার জন্য বহু মিথ্যাচার আর ভোগান্তির (জীবননাশের হুমকি, বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বহিস্কারের আন্দোলন, নানান ভয়ংকর অপবাদ) শিকার হতে হয়েছিল আমাকে। জীবনে কখনো উপকার করেছি এমন কেউ কেউও এই মিথ্যেচারে অংশ নিয়েছিল। শেষে বুঝেছি যুক্তি, তথ্য ও সৎসাহস নিয়ে মানবতাবিরোধী অপরাধ বিষয়ে কথা বলা বা শোনার মতো মানসিকতা এদেশের অধিকাংশ মানুষের নেই। বুঝেছি আওয়ামী লীগ সরকারের কু:শাসনের সমালোচকদের কথাকে বিকৃত ও অতিরঞ্জিত করে তাকে ছিন্নভিন্ন করাই এদেশের একটি মহলের রাজনীতি এখন।

মওলানা দেলোয়ার হোসেন সাঈদী গতকাল মৃত্যুবরণ করেছেন (ইন্নালিল্লাহে ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। তিনি মানুষের বিচারের উর্ধ্বে এখন। আল্লাহ্-র কাছে তিনি অবশ্যই ন্যায়বিচার পাবেন। দোষী হলে শাস্তি, না হলে ভালো প্রতিদান পাবেন। এনিয়ে আমাদের ব্যস্ত হওয়ার কিছু নেই।

আসিফ নজরুল আরও লিখেন, বিচিত্রায় ১৯৮৯ সালে মওলানা সাঈদীকে নিয়ে একটি বিস্তারিত প্রতিবেদন লেখার এসাইনমেন্ট আমাকে দেয়া হয়েছিল (অনেকে তা এখন শেয়ার করছেন)। বিচিত্রায় আমাকে প্রায় সব প্রতিবেদনের আগে ব্রীফ করতেন শাহরিয়ার কবির ভাই, সাঈদীরটাও তিনি করেছিলেন।

সাঈদীর উপর ঐ লেখাটি ছিল প্রতিবেদন, কোন মতামত নয়। মতামত দেয়ার মতো পড়াশোনা বা ম্যাচিউরিটি আমার ছিল না তখন। এখন কিছুটা হয়েছে সম্ভবত। শোনার মতো ম্যাচিউরিটি ও মানসিকতা মানুষের হলে বা দেশে বাক-স্বাধীনতা ফিরে এলে সেটা অবশ্যই বলবো কখনো।

আমার কাছে এখন বেশি জরুরি হচ্ছে এখনকার মানবতাবিরোধী অপরাধ (সিস্টেমেটিক গুম), দেশ লুট আর ভোটচোরদের নিয়ে কথা বলা। কারণ এগুলোও মুক্তিযুদ্ধের চেতনার চরম লংঘন এবং এটা অনেকে বলছে না।”

আরও পড়ুন...৩৪ বছর আগে সাঈদীকে নিয়ে যা লিখেছিলেন আসিফ নজরুল

(আমার এই পোস্টে যদি কেউ মন্তব্য করেন, তাহলে মিথ্যে বা বিকৃত কিছু বা না জেনে লিখবেন না প্লিজ। কারণ, কমেন্টের উত্তর দেওয়ার সময় বা ধৈর্য আমার খুব কম), যোগ করেন ড. আসিফ নজরুল। বাংলাদেশ জার্নাল/সামি

  • সর্বশেষ
  • পঠিত