আজ মহা অষ্টমী

প্রকাশ : ২৮ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ১১:১৫ | অনলাইন সংস্করণ

আজ মহা অষ্টমী। সকাল ৭টা ৫৫ মিনিটে দুর্গতিনাশিনী মা দেবীর নবপত্রিকা প্রবেশ ও স্থাপনের মাধ্যমে মহাসপ্তমী পূজা শুরু হয়। সকালে ত্রিনয়নী দেবী দুর্গার চক্ষুদান করা হয়। মা দুর্গার বোধনের মধ্য দিয়ে বুধবার শুরু হয় বাঙালি হিন্দু সম্প্রদায়ের প্রধান ধর্মীয় শারদীয় দুর্গাপূজা। দেশের পূজা মন্ডপগুলোতে ঢাকের বোলে ধ্বনিত হচ্ছে বাঙালির হৃদয়তন্ত্রীর বাঁধভাঙা আনন্দের জোয়ার।

মূলত দুর্গাপূজার মূল পর্ব শুরু হয় সপ্তমীতে। গতকাল বুধবার চলে দেবী-দর্শন, দেবীর পায়ে ভক্তদের অঞ্জলি প্রদান ও প্রসাদ গ্রহণ। মহাসপ্তমীতে ষোড়শ উপাচারে অর্থাৎ ষোলটি উপাদানে দেবীর পূজা চলে। দেবীকে আসন, বস্ত্র, নৈবেদ্য, পুষ্পমাল্য, চন্দন, ধূপ ও দ্বীপ দিয়ে পূজা করেন ভক্তরা। গতকাল সপ্তমী পূজার দিন সন্ধ্যায় বিভিন্ন পূজামন্ডপে ভক্তিমূলক সঙ্গীত, রামায়ণ পালা, আরতিসহ নানা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। দুর্গা দেবীর নবপত্রিকা প্রবেশ স্থাপন সপ্তম্যাদি কল্পারম্ভের মধ্য দিয়ে গতকাল শেষ হয়েছে সপ্তমী পূজা। 

রাজধানী ঢাকাসহ সারাদেশের প্রতিটি পূজামন্ডপের নিরাপত্তা রক্ষায় পুলিশ, আনসার, র‌্যাবসহ অন্যান্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা দায়িত্ব পালন করছেন। পাঁচ দিনের শারদ উৎসব শেষ হবে ৩০ সেপ্টেম্বর শনিবার বিজয়া দশমীর মধ্য দিয়ে।

এদিকে গতকাল বুধবার বিকেলে রাজধানীর লালবাগে ঢাকেশ্বরী জাতীয় মন্দির ও আর কে মিশন রোডের রামকৃঞ্চ মঠ ও মিশনে সনাতন ধর্মালম্বীদের শারদীয় দুর্গাপূজা পরিদর্শন শেষে এক শুভেচ্ছা বিনিময় অনুষ্ঠানে যোগ দেন প্রেসিডেন্ট আবদুল হামিদ। এ সময় প্রেসিডেন্ট বলেছেন, বাংলাদেশ সব ধর্মের মানুষের জন্য এবং এখানে যার ধর্ম সে স্বাধীনভাবে সম্মানের সঙ্গে পালন করবে। 

এ বছর সারাদেশে পূজামন্ডপের সংখ্যা ৩০ হাজার ৭৭টি। গত বছর এ সংখ্যা ছিল ২৯ হাজার ৩৯৫টি। গতবারের চেয়েও বেশি ৬৮২টি মন্ডপে পূজা অনুষ্ঠিত হচ্ছে। রাজধানী ঢাকায় এবার পূজামন্ডপ হচ্ছে ২৩১টি, গত বছর এই সংখ্যা ছিল ২২৯। এ বছর দু’টি বেড়েছে।। সবচাইতে বেশি পূজামন্ডপ হচ্ছে চট্টগ্রামে, ১ হাজার ৭৬৭টি। এরপর দিনাজপুরে ১ হাজার ২৪২। গোপালগঞ্জে পূজামন্ডপ হচ্ছে ১ হাজার ১৭৫টি।