ঢাকা, বুধবার, ১৪ এপ্রিল ২০২১, ১ বৈশাখ ১৪২৮ আপডেট : ১ মিনিট আগে

প্রকাশ : ০৭ এপ্রিল ২০২১, ১৩:৫৭

প্রিন্ট

তসলিমার টুইটে ক্ষেপলেন মঈনের বাবা

তসলিমার টুইটে ক্ষেপলেন মঈনের বাবা

স্পোর্টস ডেস্ক

‘ক্রিকেটার না হলে মঈন আলি জঙ্গি সংগঠনে নাম লেখাতেন,’ তসলিমা নাসরিনের এই মন্তব্য নিয়ে গোটা বিশ্ব জুড়ে সমালোচনার ঝড় বয়ে চলেছে। ব্রিটিশ ক্রিকেটাররা তার এই মন্তব্যের তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছেন। এবার তার উপর ক্ষোভ উগড়ে দিলেন ইংল্যান্ডের তারকা অলরাউন্ডার মইন আলির বাবা মুনির আলি।

তসলিমার মন্তব্যে তিনি আঘাত পেয়েছেন। তিনি বলেছেন, ‘এই মন্তব্যে আমি খুবই দুঃখ পেয়েছি, পাশাপাশি এটা বড় আঘাত। সেই সঙ্গে খুব রাগও হয়েছে।’

তিনি এটিকে ‘ইসলাম বিদ্বেষী’ বক্তব্য বলে অভিহিত করেছেন। লেখিকার শব্দ চয়ন দেখেও হতবাক হয়েছেন তিনি।

মুনির আলী বলেন, 'আমার ছেলে মঈনের বিরুদ্ধে তসলিমা নাসরিনের জঘন্য মন্তব্য পড়ে আমি হতবাক হয়েছি। তার টুইটটিতে তিনি তার মূল মন্তব্যটিকে ‘ব্যঙ্গাত্মক’ হিসাবে বর্ণনা করেছেন। আমি তাকে একটি অভিধান নিতে বলব এবং ‘ব্যঙ্গাত্মক’ শব্দটির অর্থ দেখতে বলব।'

তিনি আরো বলেন, 'যদি কখনো তার (তসলিমার) সাথে সাক্ষাত হয় তাহলে তার ও তার চেহারা সম্পর্কে আমি যা ভাবি তা বলবো। আমি বিশ্বাস করতে পারছি না সে আমার ছেলেকে বেছে নিয়েছে। মঈন কেমন ছেলে সেটা ক্রিকেট বিশ্বের সবাই জানে।'

ঘটনার সূত্রপাত, চেন্নাই সুপার কিংসের জার্সিকে ঘিরে। চেন্নাইয়ের জার্সিতে একটি স্থানীয় অ্যালকোহল সংস্থার লোগো রয়েছে। কিন্তু ইসলাম ধর্ম কোনও ভাবেই অ্যালকোহলের প্রচার সমর্থন করে না। এই বিষয়ে তাদের নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। সে কারণে নিজের জার্সি থেকে ওই নির্দিষ্ট সংস্থার লোগো তুলে নেওয়ার জন্য চেন্নাইয়ের কর্তাদের কাছে আর্জি জানিয়েছিলেন মইন আলি। তার অনুরোধ রেখে সেই লোগো ইংল্যান্ডের তারকা অলরাউন্ডারের জার্সি থেকে তুলে নেওয়ার প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়। এই পর্যন্ত সবই ঠিক ছিল।

কিন্তু সমস্যা শুরু হয়, যখন তসলিমা নাসরিন এই বিষয়টিকে নিয়ে কটাক্ষ করেন। তিনি টুইট করে লেখেন, ‘মইন আলি যদি ক্রিকেটের সঙ্গে যুক্ত না থাকতেন, তবে সিরিয়ায় গিয়ে আইএসআইএস-এ যোগ দিতেন।’ তার এই মন্তব্যের পরই সমালোচনার ঝড় ওঠে। তার উপর ক্ষোভ উগড়ে দেন ব্রিটিশ ক্রিকেটাররা। সেই সঙ্গে ক্রিকেট ভক্তরাও তসলিমার মন্তব্যের তীব্র প্রতিবাদ জানান।

এই ঘটনার পরে নিজের অবস্থান থেকে সরে এসে তসলিমা জানান, তিনি নাকি মজা করতেই এই কথা লিখেছেন। এর পরও অবশ্য তাকে ঘিরে সমালোচনা বন্ধ হয়নি।

বাংলাদেশ জার্নাল/টিআই

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত