ঢাকা, রোববার, ২৩ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১ আপডেট : ১৭ মিনিট আগে
শিরোনাম

চ্যাম্পিয়নস লিগে ম্যানইউ, ছিটকে গেল লিভারপুল

  ক্রীড়া ডেস্ক

প্রকাশ : ২৬ মে ২০২৩, ১১:৩৭

চ্যাম্পিয়নস লিগে ম্যানইউ, ছিটকে গেল লিভারপুল
চ্যাম্পিয়নস লিগে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড । ছবি: সংগৃহীত

ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ (ইপিএল) আগেই হাতছাড়া হয়েছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের। তবে লিগে পয়েন্ট টেবিলে শীর্ষ চারে থাকা নিয়ে লড়াইটা জমে ওঠেছিল বেশ। বিশেষ করে দুই শীর্ষ ক্লাব ম্যানইউ আর লিভারপুলের কাছে চারে থেকে মৌসুম শেষ করতে পারা ছিল খুবই গুরুত্বপূর্ণ। তা না হলে যে খেলতে পারবে না আগামী মৌসুমের চ্যাম্পিয়ন্স লিগে। এমন ইকুয়েশন মাথা নিয়ে এবার প্রিমিয়র লিগের ম্যাচে চেলসিকে ৪-১ গোলে উড়িয়ে চ্যাম্পিয়নস লিগের টিকিটি পেল রেড ডেভিলরা। কপাল পুড়েছে গতবারের রানার্সআপ লিভারপুলের।

বৃহস্পতিবার (২৫ মে) রাতে ওল্ড ট্রাফোর্ডে মুখোমুখি হয় ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড ও চেলসি। আর সেই ম্যাচে চেলসিকে ৪-১ গোলে বিধ্বস্ত করে নিউক্যাসলকে টপকে তিন নম্বরে ওঠে গেছে টেন হ্যাগের দল। এ জয়ে ৩৭ ম্যাচ শেষে ৭২ পয়েন্ট এখন ম্যানইউয়ের। সমান ম্যাচে ৭০ পয়েন্ট নিয়ে চ্যাম্পিয়নস লিগ নিশ্চিত হয়েছে নিউক্যাসলেরও। তালিকার পাঁচ নম্বরে থাকায় লিভারপুলকে খেলতে হবে ইউরোপা লিগ।

এদিন, পয়েন্ট টেবিলের ১২ নম্বরে থাকা চেলসির বিরুদ্ধে ৪-২-৩-১ ফর্মেশনে দল নামান ম্যান ইউ কোচ। অন্যদিকে চেলসিও কঠিন প্রতিপক্ষকে রুখে দিতে ৪-৩-৩ ফর্মেশনে দল নামায়। তবে শেষ পর্যন্ত বাজিমাত করে ম্যান ইউ। এদিন ম্যাচের প্রথম থেকেই দাপট দেখাতে থাকে ক্যাসিমেরোরা। অপেক্ষাকৃত সহজ প্রতিপক্ষকে নিয়ে কার্যত ছেলেখেলা করতে থাকেন তারা।

ম্যাচের শুরুতেই অর্থাৎ ৬ মিনিটের মাথায় এরিকসনের পাস থেকে গোল করে দলকে এগিয়ে দেন ক্যাসিমেরো। শুরুতেই ধাক্কা খায় চেলসি। তবে এই ম্যাচের শুরুতে ম্যান ইউ কোচকে দলে পরিবর্তন ঘটাতে হয়। অ্যান্টনির চোট লাগলে ২৯ মিনিটের মাথায় মাঠে নিয়ে আসা হয় রাশফোর্ডকে। তবে প্রথমার্ধেই ফের আরও একটি গোল করতে সক্ষম হয় ম্যান ইউ। প্রথমার্ধের ইঞ্জুরি টাইমে গোল করে দলকে আরও এগিয়ে দেন অ্যান্টনি মার্টিয়াল। ২-০ ভাবে প্রথমার্ধ শেষ করে তারা।

চেলসির বিপক্ষে ক্যাসিমেরোর গোল উদযাপন । ছবি: সংগৃহীত

দ্বিতীয়ার্ধ শুরু হলে আক্রমণ বাড়ায় চেলসি। কিন্তু তারা খুব একটা সুবিধা করে উঠতে পারেনি। ম্যান ইউ-র ফুটবলারদের কাছে অনেকটাই ব্যাকফুটে চলে যায় চেলসি। ম্যাচে ফেরার মরিয়া চেষ্টা চালালেও পুরোপুরি ভাবে ব্যর্থ হয় তারা। বরং পরিবর্তে গোল হজম করতে হয় তাদের। ৭৩ মিনিটের মাথায় পেনাল্টি থেকে জালে বল জড়িয়ে দলের তৃতীয় গোলটি এনে দেন ব্রুনো ফার্নান্ডেজ। আর এই গোলের সঙ্গে সঙ্গে চেলসির হার নিশ্চিত হয়ে যায়।

৭৩ মিনিটে ব্রুনোর গোলের কয়েক মিনিটের পর এই ম্যাচের ম্যান ইউ-র শেষ গোলটি করেন রাশফোর্ড। ৭৮ মিনিটের মাথায় দুর্দান্ত গোল করেন তিনি। আর এই গোলের পরই ডিফেন্সিভ ফুটবল খেলতে থাকে ম্যান ইউ। আর সেই সুযোগে ব্যবধান কমায় চেলসি। ম্যাচের ৮৯ মিনিটের মাথায় গোল করে ব্যবধান কমান জোয়াও ফেলিক্স। আর এই ম্যাচে জয়ের সঙ্গে সঙ্গে চ্যাম্পিয়ন্স লিগে জায়গা করে নিল ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড।

চ্যাম্পিয়নস লিগ নিশ্চিত হওয়ায় খুশি ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড কোচ টেন হ্যাগ। ম্যাচ শেষে তিনি বলেন, ‘এই অর্জন গুরুত্বপূর্ণ। চ্যাম্পিয়ন্স লিগই এই ক্লাবের জায়গা। শীর্ষ চারে থাকা ছিল আমাদের মূল লক্ষ্য। এই লিগ ভীষণ কঠিন। ভালো স্কোয়াড, দারুণ সব ম্যানেজার ও বড় বাজেট নিয়ে এখানে ভালো দল অনেক। প্রিমিয়ার লিগে কাজটা কখনোই সহজ নয়। তাই এখানে লক্ষ্য পূরণ করতে পারা মানে অনেক বড় কাজ সম্পন্ন করা।’

বাংলাদেশ জার্নাল/আরআই

  • সর্বশেষ
  • পঠিত