ঢাকা, রবিবার, ২৪ মার্চ ২০১৯, ১০ চৈত্র ১৪২৬ অাপডেট : ৭ মিনিট আগে English

প্রকাশ : ১৫ মার্চ ২০১৯, ০০:১৭

প্রিন্ট

কার চোখে কে সেরা?

কার চোখে কে সেরা?
অনলাইন ডেস্ক

ন্যু ক্যাম্পে বুধবার রাতে মেসির চোখধাঁধানো পারফরম্যান্সে লিওঁকে উড়িয়ে দিয়েছে বার্সেলোনা। এর আগের দিন জুভেন্টাসকে প্রায় একাই কোয়ার্টার ফাইনালে তুলেছেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো।

চ্যাম্পিয়নস লিগের কোয়ার্টার ফাইনালে মেসির জোড়া গোল ও দুই এসিস্টে ঘরের মাঠে ৫-১ গোলের জয় পায় বার্সা।

তবে মেসির চেয়ে পর্তুগিজ তারকার কাজটা ছিল কয়েকগুণ কঠিন। প্রথম লেগে অ্যাতলেটিকো মাদ্রিদের মাঠে ০-২ গোলে হেরে দেশে ফিরেছিল জুভেন্টাস। দ্বিতীয় লেগ নিজেদের মাঠে হলেও প্রতিপক্ষ অ্যাতলেটিকো বলেই কাজটা বেশ কঠিন ছিল। আর সে কাজ বেশ সহজেই করে দিলেন রোনালদো। তিনটি গোল করেছেন এ পর্তুগিজ তারকা।

রোনালদোর প্রশংসায় তাই মেসি বলেন, যেটা ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো এবং জুভেন্টাস করেছে সেটা দুর্দান্ত। আমি ভেবেছিলাম অ্যাতলেটিকো মাদ্রিদকে হারানো অনেক কঠিন হবে। রোনালদো তিনটি দিয়ে জাদুকরী একটি রাত কাটিয়েছে।

এদিকে বর্তমান সময়ের এই দুই সেরা ফুটবল তারকার ঢালাও প্রশংসা করেছেন আর্জেন্টাইন মহাতারকা ডিয়েগো ম্যারাডোনা।

মেসি সম্পর্কে বলতে গিয়ে ১৯৮৬ বিশ্বকাপের মহানায়ক বলেছেন, কিছু ফুটবলার রয়েছে, যারা জাদুদণ্ডের ছোঁয়া পেয়েছে। আমরা আর্জেন্টিনীয়রা গর্বিত কারণ মেসি স্পেনের হয়ে খেলে না।

ছোটবেলায় আর্জেন্টিনা থেকে স্পেনে চলে এসেছিলেন মেসি। তবুও স্পেনের জার্সি পরে খেলেন না এলএম টেন। সেই কারণেই মেসির প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন ম্যারাডোনা।

অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদের বিরুদ্ধে রোনালদো পারফরম্যান্স দেখে ম্যারাডোন তাকে ‘অ্যানিমাল’ বলেছেন। সেটা অবশ্য সিআর সেভেনের শারীরিক সক্ষমতার জন্যই। এরই পাশাপাশি ম্যারাডোনাকে বলতে শোনা গিয়েছে, রোনালদো অলৌকিক ক্ষমতার অধিকারী। ও বলেছিল তিন গোল করবে। তিনটে গোলই করেছে ম্যাচে।

এই দুইজনকে নিয়ে লেস্টার সিটির ম্যানেজার ব্রেন্ডান রজার্স বলেন, হয়তো অবচেতনভাবে দু’জনই একজন আরেকজনের প্রতদ্বন্দ্বিতা করেন। তবে আমার মনে হয় দুজনের মধ্যেই নিজেদেরকে ছাড়িয়ে যাওয়ার এক ধরণের ক্ষুধা কাজ করে। তাদের মতো শীর্ষ সারির অ্যাথলিটদের ক্ষেত্রে এরকমটাই স্বাভাবিক।

মেসি আর রোনালদো একজন আরেকজনের সাথে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় মত্ত - এমন ধারণা তাদের সমর্থকদের তর্ক-বিতর্কের স্বার্থে বা মিডিয়ার জন্য খুব রোমাঞ্চকর একটি প্রসঙ্গ হলেও, বাস্তবে সম্ভবত বিষয়টি এমনও নয়।

এদিকে শেষ চারের লড়াইয়ে হয়তো রোনালদোর জুভেন্টাসের মুখোমুখি হতে পারে বার্সেলোনা। আর এমনটা হলে আরো একটি মেসি-রোনালদো দ্বৈরথ দেখতে পারবে ফুটবল বিশ্ব।

বাংলাদেশ জার্নাল/জেডআই

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • অালোচিত
close
close