ঢাকা, শনিবার, ২৩ নভেম্বর ২০১৯, ৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৬ আপডেট : ১১ মিনিট আগে English

প্রকাশ : ০৪ নভেম্বর ২০১৯, ০৯:০৪

প্রিন্ট

ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগে আসছে পরিবর্তন

ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগে আসছে পরিবর্তন
জার্নাল ডেস্ক

ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সম্মেলন ডিসেম্বরের দ্বিতীয় সপ্তাহের মধ্যে করার নির্দেশনা দিয়েছেন দলের সভাপতি শেখ হাসিনা। রোববার দুই মহানগরের শীর্ষ নেতৃত্বকে তা জানিয়ে দিয়েছেন দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

এবার দুই মহানগরের শীর্ষ চার পদের মধ্যে কমপক্ষে দুটি পদে পরিবর্তন আসবে বলে আওয়ামী লীগের নীতিনির্ধারণী পর্যায়ের নেতাদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে।

ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ জানান, দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের সভাপতি শেখ হাসিনার রেফারেন্স দিয়ে তাদের জানিয়েছেন ডিসেম্বরে দলের কেন্দ্রীয় সম্মেলনের আগে ঢাকা মহানগর উত্তর-দক্ষিণের সম্মেলনের প্রস্তুতি নিতে।

২০-২১ ডিসেম্বর দলের ২১তম জাতীয় সম্মেলন হওয়ার কথা। সে অনুযায়ী ডিসেম্বরের দ্বিতীয় সপ্তাহে ঢাকা মহানগরের দুই অংশের সম্মেলন হতে পারে বলে জানান শাহে আলম মুরাদ। তারিখ নির্দিষ্ট হবে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা অনুযায়ী।

জানা গেছে, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল হাসনাত ও সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ এবং ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের সভাপতি একেএম রহমত উল্লাহ ও সাধারণ সম্পাদক সাদেক খান ফের এই পদের প্রত্যাশা করছেন।

যদিও তারা বলছেন নেত্রী তাদের যেখানে দেবেন সেখানেই দায়িত্ব পালন করবেন। এ ছাড়া মহানগর দক্ষিণের সহসভাপতি আবুল বাশার, হুমায়ুন কবীরসহ বেশ কয়েকজন সভাপতি পদের জন্য নিজেদের অবস্থান জানান দিচ্ছেন। সাধারণ সম্পাদক পদে আলোচনায় আছেন যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ডা. দিলীপ কুমার রায়, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আখতার হোসেন, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিবিষয়ক সম্পাদক ওমর বিন আজিজ তামিমসহ বেশ কয়েকজন।

মহানগর উত্তরের সহসভাপতি আসলামুল হক, শেখ বজলুর রহমানও সভাপতি পদের প্রত্যাশায় আছেন। সাধারণ সম্পাদক পদে যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কাদের খান, এসএম মান্নান কচি, হাবিব হাসান, উপপ্রচার সম্পাদক আজিজুল হক রানার নাম আলোচনায় রয়েছে।

২০১২ সালের ২৭ ডিসেম্বর ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলন হয়। এর তিন বছর পর মহানগর আওয়ামী লীগকে দুই ভাগে বিভক্ত করা হয়। ২০১৬ সালের ১০ এপ্রিল মহানগর আওয়ামী লীগ উত্তর-দক্ষিণ, ৪৫টি থানা এবং ১০০টি ওয়ার্ড ও ইউনিয়নের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকদের নাম ঘোষণা করেন আওয়ামী লীগের তখনকার সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম। সূত্র: আমাদের সময়

বাংলাদেশ জার্নাল/কেআই

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত