ঢাকা, শনিবার, ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ৯ ফাল্গুন ১৪২৬ আপডেট : ১ ঘন্টা আগে English

প্রকাশ : ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১৭:৪৯

প্রিন্ট

নেত্রকোনায় স্বামীর হাতে স্ত্রী খুন

নেত্রকোনায় স্বামীর হাতে স্ত্রী খুন
প্রতীকী ছবি
নেত্রকোনা প্রতিনিধি

নেত্রকোনার বারহাট্টা উপজেলার বাউসী ইউনিয়নের প্রেমনগর কান্দাপাড়া গ্রামের রফিকুল ইসলামের স্ত্রী নাজমা আক্তার (২২) পারিবারিক কলহের জের ধরে বুধবার রাতে খুন হয়েছেন। স্বামী রফিকুল ইসলামের টর্চ লাইটের আঘাতে তিনি খুন হন। নাজমা উপজেলার চিরাম ইউনিয়নের চাট্টা গ্রামের কিতাব আলীর মেয়ে। পুলিশ বৃহস্পতিবার দুপুরে গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নেত্রকোনা আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে। এলাকাবাসী রফিকুল ইসলামকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার চিরাম ইউনিয়নের চাট্টা গ্রামের কিতাব আলীর মেয়ে নাজমা আক্তারের সাথে প্রায় চার বছর আগে একই উপজেলার বাউসী ইউনিয়নের প্রেমনগর কান্দাপাড়া গ্রামের আক্তার উদ্দিনের ছেলে রফিকুল ইসলামের বিয়ে হয়। বিয়ের কিছুদিন পর তাদের মধ্যে মনোমালিন্যের সৃষ্টি হয়। এ নিয়ে নাজমাকে প্রায়শই শারীরিক ও মানষিক নির্যাতন করতো রফিকুল ইসলাম। কিছুদিন আগে নাজমা বাবার বাড়িতে চলে যায়।

বুধবার রাতে রফিকুল ইসলাম শ্বশুর বাড়িতে যায় এবং স্ত্রী নাজমাকে তার সাথে বাড়ি যাবার কথা বলে। এ নিয়ে তাদের মধ্যে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে বুধবার গভীর রাতে বাড়ির সামনে পুকুর পাড়ে টর্চ লাইট দিয়ে নাজমার মাথায় আঘাত করে রফিকুল ইসলাম। এতে নাজমা আক্তার ঘটনাস্থলেই মারা যায়।

খবর পেয়ে বৃহস্পতিবার বিকাল ৩টার দিকে বারহাট্টা থানা পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নেত্রকোনা আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠায়। এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

বারহাট্টা থানার ওসি মো. বদরুল আলম খান বাংলাদেশ জার্নালকে জানান, পারিবারিক কলহের জেরে এ ঘটনা ঘটেছে। স্বামী রফিকুলকে আটক করা হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

বাংলাদেশ জার্নাল/এইচকে

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত