ঢাকা, সোমবার, ২১ অক্টোবর ২০১৯, ৫ কার্তিক ১৪২৬ আপডেট : কিছুক্ষণ আগে English

প্রকাশ : ১০ অক্টোবর ২০১৯, ১৯:৫০

প্রিন্ট

শিক্ষকদের নৈতিক অবস্থান নিয়ে শিক্ষামন্ত্রীর প্রশ্ন

শিক্ষকদের নৈতিক অবস্থান নিয়ে শিক্ষামন্ত্রীর প্রশ্ন
অনলাইন ডেস্ক

শিক্ষার্থী নির্যাতন, ক্যম্পাসে কোন একটি রাজনৈতিক ছাত্র সংগঠনের একচ্ছত্র অধিপত্য ও নানা অনিয়ম দীর্ঘদিন সহ্য করার পর আবরার হত্যার প্রতিবাদে আন্দোলনরত বুয়েট শিক্ষকদের নৈতিক অবস্থান নিয়ে প্রশ্ন তুলেছন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। তিনি বলেন, আজকে যারা আবরার হত্যার প্রতিবাদ, উপাচার্যের পদত্যাগ, ছাত্র রাজনীতি বন্ধসহ বিভিন্ন দাবিকে আন্দোলন করছেন; তার আগে সোচ্চার হলেই হয়ত হয়তো এরকম একটি মর্মান্তিক ঘটনা প্রতিরোধ করা যেত। আর অনেক শিক্ষার্থীর কষ্টই হয়তো লাঘব করা সম্ভব হতো। তারা তো দীর্ঘদিন ধরে এ ধরনের অন্যায় কী করে মেনে নিয়েছেন? চলতে দিয়েছেন? এটি আমার কাছে বোধগম্য নয়। অন্যায় প্রতিরোধে শিক্ষক হিসেবে এতদিন তাদের নৈতিক অবস্থান থেকে তারা কি করেছেন? সেটি কি তারা আমাদের একটু জানাতে পারেন।

বৃহস্পতিবার (৮ অক্টোবর) রাজধানীর আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ইনস্টিটিউটে ‘গ্লোবাল এডুকেশন মনিটরিং রিপোর্ট-২০১৯’এর মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি।

এসময় শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি আরও বলেন, বুয়েটে যেমন ছাত্রলীগ আছে তেমনি অন্যান্য রাজনৈতিক ছাত্র সংগঠনগুলো দীর্ঘদিন থেকেই অনেক শক্তিশালী। সেখানে শুধুমাত্র সরকারের সাথে রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত ছাত্রসংগঠনের কারণে নির্যাতনসহ নানা অনিয়মের বিরুদ্ধে শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা কথা বলতে পারেননি, এটি গ্রহণযোগ্য যুক্তি হতে পারে না। তিনি আরও বলেন, একজন শিক্ষকের কাছে শিক্ষার্থী সন্তান তুল্য। সেখানে শিক্ষার্থীরা নির্যাতনের শিকার হচ্ছেন এটি জানতে পারার পরে; যেখানে কথা বললে, যার সাথে কথা বললে, যেভাবে আওয়াজ তুললে সেটি বন্ধ হবে তা করা আসলে শিক্ষকদের প্রথম কাজ হওয়া উচিত ছিল।

বুয়েটে ছাত্র রাজনীতি বন্ধ করে দেয়া হবে কিনা এমন প্রশ্নের উত্তরে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেন, বুয়েট স্বায়ত্বশাসিত প্রতিষ্ঠান। ছাত্র রাজনীতি বন্ধের বিষয়ে তারা সিদ্ধান্ত নেবে।

এর আগে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে, বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় দু:খ প্রকাশ করেন শিক্ষামন্ত্রী ড. দীপু মনি। এসময় নিহত শিক্ষার্থীর পরিবারে প্রতি সমবেদনা জানান তিনি। তিনি আরও বলেন, আইন শৃঙ্খলা বাহিনী দ্রুত ব্যবস্থা নেয়ায় এ নির্মম হত্যাকাণ্ডের সাথে জড়িতদের চিন্তিত করে তাদের গ্রেফতার করা সম্ভব হয়েছে।

এসময় নির্যাতনমুক্ত শিক্ষা ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে সব শিক্ষক-শিক্ষার্থী, গণমাধ্যম কর্মী ও শিক্ষা সংশ্লিষ্টদের একযোগে কাজ করার আহ্বান জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি।

অনুষ্ঠানে শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল, শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের সিনিয়র সচিব মো. সোহরাব হোসাইন, কারিগরি ও মাদরাসা শিক্ষা বিভাগের সচিব মুনশী শাহবুদ্দীন আহমেদ, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ে অতিরিক্ত সচিব জি এম হাসিবুল আলম, শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ড. সৈয়দ মো. গোলাম ফারুক, ইউনেস্কোর হেড রিপ্রেসেন্টিটিভ বিয়াট্রিস কালদ্রুনসহ শিক্ষা মন্ত্রণালয়, ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত