ঢাকা, শনিবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৬ আশ্বিন ১৪২৬ আপডেট : ১ ঘন্টা আগে English

প্রকাশ : ০৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১৬:৫১

প্রিন্ট

বাংলাদেশিদের রোহিঙ্গা বললেন তসলিমা

বাংলাদেশিদের রোহিঙ্গা বললেন তসলিমা
জার্নাল ডেস্ক

নিজ দেশ মিয়ানমারে সেনা ও রাখাইন যুবকদের পাশবিকতা থেকে বাঁচতে সীমান্ত প্রতিবেশি বাংলাদেশে পালিয়ে আসে রোহিঙ্গারা। বিশ্ব মিডিয়া ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে হত্যার বিভীষিকা দেখে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মানবিক কারণে তাদের আশ্রয় দেন। কিন্তু দিনে দিনে বিভিন্ন ধরনের অপরাধে জড়িয়ে পড়ছে রোহিঙ্গাদের একাংশ। মাত্রা ছাড়িয়ে যাচ্ছে তাদের অপরাধ। রোহিঙ্গাদের মারমুখী আক্রমণ থেকে রেহাই মিলছে না কারোরই।

শুধু নিজ গোত্রের গণ্ডিতে এখন আর সীমাবদ্ধ নেই রোহিঙ্গাদের অপরাধ কার্যক্রম। ইতিমধ্যে তাদের রোষানলে পড়ে একাধিকবার লাঞ্ছিত হয়েছেন দেশি-বিদেশি সাংবাদিক, এনজিও কর্মী, বিদেশি পরিদর্শক দলের প্রতিনিধি ও স্থানীয় প্রশাসনের কর্মকর্তারা। সব থেকে চরম বেকায়দায় পড়েছেন স্থানীয়রা।

এমতাবস্থায় রোহিঙ্গা সমস্যা নিয়ে নিজের মত ব্যক্ত করলেন প্রখ্যাত নারীবাদী লেখিকা তসলিমা নাসরিন। নিজের ভেরিফায়েড আইডিতে শুক্রবার তসলিমা লেখেন, ‘রোহিঙ্গাদের ভাষা শুনে চেহারা দেখে কাপড়-চোপড় দেখে তো মনে হয় তারা যত না বার্মার লোক, তার চেয়ে বেশি বাংলাদেশের লোক। ১১ লক্ষ অশিক্ষিত লোক, তার মধ্যে অনেকেই বর্বর, চোর, ডাকাত, চোরাকারবারি, খুনী, ধর্ষক, ধর্মান্ধ, সন্ত্রাসী। বাংলাদেশে এমন লোকের কি আদৌ অভাব? বাংলাদেশের লোকদের চরিত্র কি রোহিঙ্গাদের চরিত্র থেকে খুব আলাদা? বাংলাদেশে যদি বাস করতে চায় এরা, করুক। মূলস্রোতে মিশে যাক। ১৫ কোটি মানুষের দেশে ১১ লক্ষ এমন কোনো বড় সংখ্যা নয়। পৃথিবীতে সবারই অধিকার আছে যেখানে খুশি যাওয়ার, যেখানে খুশি বাস করার।’

‘জার্মানি যখন ১১ লক্ষ অশিক্ষিত আরব মুসলমানদের আশ্রয় দিয়েছে, বাংলাদেশের লোকেরা খুশিতে হাততালি দেয়নি? দিয়েছে। এখন রোহিঙ্গাদের প্রশ্নে জার্মানির মতো হতে পারছে না কেন? অন্যে উদার হলে ঠিক আছে, নিজের উদার হওয়ার দরকার নেই? রোহিঙ্গাদের তুচ্ছ তাচ্ছিল্য করছো কেন বাপু। তোমরা যখন ইউরোপ আমেরিকায় গিয়ে আশ্রয় ভিক্ষে চাও, তোমরাও তখন এক একটা রোহিঙ্গা। তোমরা যখন আরব দেশে শ্রমিকের কাজ করতে যাও, তোমাদেরও রোহিঙ্গাদের মতো দেখায়। তোমরা যখন রোহিঙ্গাদের গালি দাও, তোমরা আসলে নিজেদেরই গালি দাও।’

বাংলাদেশ জার্নাল/এইচকে

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত