ঢাকা, শনিবার, ১৯ অক্টোবর ২০১৯, ৩ কার্তিক ১৪২৬ আপডেট : ৩ মিনিট আগে English

প্রকাশ : ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১২:৫৫

প্রিন্ট

বোরখা পরায় স্বর্ণ পদক পেলেন না কলেজছাত্রী

বোরখা পরায় স্বর্ণ পদক পেলেন না কলেজছাত্রী
ছবি: সংগৃহীত
অনলাইন ডেস্ক

কলেজ সমাবর্তনে বোরখা পরে এসেছিলেন স্নাতক পরীক্ষায় ফার্স্ট ক্লাস ফার্স্ট হওয়া এক মুসলিম ছাত্রী। পরীক্ষায় প্রথম হওয়ায় স্বর্ণপদক পাওয়ার কথা ছিল তারই। কিন্তু পুরস্কার তো দূরের কথা, তাকে সার্টিফিকেট পর্যন্ত দেয়নি কলেজ কর্তৃপক্ষ।

সম্প্রতি এই দুঃখজনক ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের রাঁচিতে, মাড়ওয়ারি কলেজ। কর্তৃপক্ষের দাবি, কলেজের সমাবর্তনে আসতে হলে নির্দিষ্ট ড্রেস কোড মেনে আসতে হয়। ওই ছাত্রীটি সেই ড্রেস কোড না মেনায় তাকে ডিগ্রির সার্টিফিকেট দেওয়া হয়নি।

ওই ছাত্রীর নাম নিশাত ফাতিমা। তিনি কলেজের সমাবর্তন অনুষ্ঠানের দিন নিজের পরিবারের সঙ্গে এসেছিলেন। বাবা-মায়ের সঙ্গে অপেক্ষা করছিলেন দর্শকদের মধ্যে। অনুষ্ঠানের শুরুতেই তারই স্বর্ণ পদক পাওয়ার কথা ছিল। এক পর্যায়ে পুরস্কার ও সার্টিফিকেট নেয়ার জন্য তার নামও ঘোষণা করা হয়। পুরস্কার নিতে তিনি যথারীতি মঞ্চেও উঠেন। কিন্তু তাকে বোরখা পরা অবস্থায় দেখে দ্রুত সিদ্ধান্ত পাল্টান কলেজ কর্তৃপক্ষ।

তারা জানান, ফাতিমাকে এই পুরস্কার দেয়া হবে না। কারণ, তিনি ‘ড্রেস কোড’ মেনে পোশাক পরেননি।

জানা যায়, কলেজ কর্তৃপক্ষ সমাবর্তনের ‘ড্রেস কোড’ হিসেবে ছেলেদের জন্য কুর্তা-পাঞ্জাবি এবং মেয়েদের জন্য সালোয়ার স্যুট বা শাড়ি পরা বাধ্যতামূলক বলে ঘোষণা করেছিল। কিন্তু, নিশাত ফাতিমা ইসালমের রীতি অনুযায়ী বোরখা পরে কলেজ আসেন।

তার বাবা মুহম্মদ ইকরামুল এ নিয়ে কলেজ কর্তৃপক্ষের কাছে মেয়ের হয়ে সুপারিশ করেন। বলেন, ‘মুসলিম রীতি অনুযায়ী ঘরের বাইরে যেতে হলে মেয়েদের বোরখা পরতে হয়। তার মেয়েও সেটা করেছেন। এতে তো কোনো অন্যায় নেই।’

কিন্তু, তার অনুরোধ গায়ে মাখেননি কর্তৃপক্ষ। শেষপর্যন্ত মেধাবী ছাত্রী ফাতিমা নিশাতকে কোনো সার্টিফিকেট ছাড়াই ঘরে ফিরতে হয়েছে।

এমএ/

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত