ঢাকা, সোমবার, ১৮ জানুয়ারি ২০২১, ৪ মাঘ ১৪২৭ আপডেট : ১ মিনিট আগে English

প্রকাশ : ১৪ জানুয়ারি ২০২১, ২২:১৭

প্রিন্ট

নিত্যপণ্যের মূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে যুব অধিকার পরিষদের মানববন্ধন

নিত্যপণ্যের মূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে যুব অধিকার পরিষদের মানববন্ধন
ছবি- প্রতিনিধি

ঢাবি প্রতিনিধি

নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে যুব অধিকার পরিষদ। বৃহস্পতিবার দুপুরে রাজধানীর শাহবাগে জাতীয় জাদুঘরের সামনে এ মানববন্ধন করেন পরিষদের নেতারা।

মানববন্ধনে বাজার নিয়ন্ত্রণে সরকারের ব্যর্থতার সমালোচনা করেন বক্তারা। নিত্যপণ্যের মূল্য বৃদ্ধির কারণে সরকারের আর ‘ক্ষমতায় থাকার অধিকার নেই’ বলে মন্তব্য করেন তারা।

মানববন্ধনে ‘‘ভারতের পেঁয়াজনীতি বয়কট বয়কট, আমার সোনার বাংলায়, সিন্ডিকেটের ঠাই নাই’’ বলে শ্লোগান দেন সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

মানববন্ধনে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের সাবেক ভিপি নুরুল হক নুর সরকারের সমালোচনা করে বলেন, বর্তমান সরকার ভাঁওতাবাজির ইস্তেহার দিয়েছে। কিন্তু বাস্তবে ১০ টাকার চালের দাম ৭০ টাকা। ভাঁওতাবাজি করে গত ৪৯ বছর ধরে রাজনৈতিক দলগুলো ক্ষমতায় থেকে জনগনের উপর অত্যাচার নিপীড়ন নির্যাতন চালিয়েছে। আমরা এখানে কোন রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে না দাঁড়ালেও আজ পুলিশ আমাদের চারদিকে ঘিরে রেখেছে। তারা এমনভাবে প্রস্তুত মনে হচ্ছে যেন কোন তাণ্ডব চালাবে।

তিনি বলেন, আমরা পাকিস্তানি হানাদারে থেকে আরেক হানাদারদের হাতে পরেছি, যারা জনগণের জীবনকে তছনছ করে ফেলছে।

তিনি দেশের ব্যবসায়ীদের উদ্দেশ্যে বলেন, আপনারা দেশের পেঁয়াজ থাকতে কেন ভারতের পেঁয়াজ নিচ্ছেন? সরকার কেন এই পেঁয়াজের ভরা মৌসুমে পেঁয়াজ আমদানির অনুমতি দিল, যখন দেশের কৃষকদের কাছেই পেঁয়াজ আছে।

তিনি পাটকল বন্ধের বিষয়ে সমালোচনা করে বলেন, দেশের পাটকল চিনিকলগুলো কেন বন্ধ রাখা হয়েছে যেখানে আমাদের নিজদেশের ছেলেদের কর্মসংস্থান হয়। সরকার এসব প্রতিষ্ঠান বন্ধ রেখে দেশকে একটি নির্ভরশীল রাষ্ট্রে পরিণত করছে।

ছাত্র অধিকার পরিষদের যুগ্ম আহবায়ক ফারুক হাসান বলেন, আজ সমগ্র বাংলাদেশকে একটি সিন্ডিকেট দ্বারা পরিচালনা করা হচ্ছে, যার ফলে দেশের কৃষকরা ন্যায্য মূল্য পাচ্ছে না। অপরদিকে দ্রব্যমূলের বাজার লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে।

শ্রমিক অধিকার পরিষদের আহবায়ক আব্দুর রহমান বলেন, প্রত্যেক পণ্য পল্লী অঞ্চলগুলো থেকে শহরে আসতে প্রত্যেক স্থানে চাঁদাবাজি হয়, তাই দ্রব্যমূলের বাজার বৃদ্ধি পাচ্ছে। সরকার এসব চাঁদাবাজি নির্মূল করতে পারছে না।

ছাত্র অধিকার পরিষদের ভারপ্রাপ্ত আহবায়ক রাশেদ খান বলেন, দেশে চাকরিজীবীদের কথা বিবেচনা করা হয় কিন্তু কৃষক শ্রমিকদের কথা বিবেচনা করা হয় না। আজকে বাজার নিয়ন্ত্রণ করে সিন্ডিকেট, সরকার বাজার সিন্ডিকেট মুক্ত করতে ব্যর্থ হয়েছে। ফলে দ্রব্যমূল্য মানুষের ক্রয়ক্ষমতার বাইরে চলে গেছে।

আরও পড়ুন- গণতন্ত্রকে ফিরিয়ে আনতে চাই: ফখরুল

বাংলাদেশ জার্নাল/আর

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত