ঢাকা, রোববার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১০ আশ্বিন ১৪২৯ আপডেট : ৩ মিনিট আগে

২২ বছর ধরে ম্যানহোলের মধ্যেই পরিপাটি সংসার

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশ : ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৭:২০  
আপডেট :
 ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৮:২৬

২২ বছর ধরে ম্যানহোলের মধ্যেই পরিপাটি সংসার
২২ বছর ধরে ম্যানহোলে বসবাস। ছবি: সংগৃহীত
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

কোনও বাড়ি নয়, বরং ম্যানহোলের ভিতর দীর্ঘ ২২ বছর ধরে রয়েছেন কলোম্বিয়ার এক দম্পতি। মাথার উপর ছাদ রয়েছে, চার দেওয়ালের ভিতর নিজেদের সংসার গুছিয়ে তুলেছেন মারিয়া গার্সিয়া এবং তার স্বামী মিগুয়েল রেস্ট্রেপো।

মারিয়া গার্সিয়া এবং তার স্বামী মিগুয়েল রেস্ট্রেপো। দু’জনের আলাপ হয় কলোম্বিয়ার মেডেলিন অঞ্চলে। দু’জনের মধ্যে এক অদ্ভুত মিল ছিল।

মাত্রাতিরিক্ত মাদকদ্রব্য সেবন করতেন দু’জনেই। সেই সূত্রেই আলাপ হয় মারিয়া ও মিগুয়েলের। রাস্তার ধারে থাকতেন তারা দু’জন। কিন্তু তারা বুঝতে পারেন, মাদকসেবনের ফলে দু’জনের জীবন শেষ হয়ে যাচ্ছে।

একসময় মারিয়া ও মিগুয়েল সিদ্ধান্ত নেন, তারা মাদকসেবন থেকে নিজেদের দূরে রাখবেন। তবে মাথার উপর স্থায়ী কোনও ছাদ ছিল না তাদের এবং আত্মীয়-স্বজনেরাও তাদের আশ্রয় দেননি। এমনকি, আর্থিক দিক দিয়ে সহায়তাও করেননি।

অবশেষে তারা আশ্রয় নেন একটি ম্যানহোলের ভিতর। দুর্গন্ধ ও জঞ্জালে ভর্তি ম্যানহোলকেই দু’জন মিলে সাজিয়ে তোলেন। সেই ম্যানহোলের বাড়ির নাম দেন ‘কেয়ার অফ ম্যানহোল’।

একটি ছোট বিছানা, রান্না করার আলাদা জায়গা থেকে শুরু করে এই ম্যানহোলের ভিতর বিদ্যুৎসংযোগ ও টেলিভিশনও রয়েছে। এছাড়াও জামাকাপড় রাখার জন্য কাঠের পাটাতন দিয়ে তাকও বানিয়েছেন তারা।

পরবর্তীতে সুযোগ পেলেও তারা এই ম্যানহোল ছেড়ে অন্য কোথাও যাননি। তারা এ ভাবে থাকতেই অভ্যস্ত হয়ে পড়েছেন। শহরের কোলাহল থেকে দূরে থাকতেই পছন্দ করেন মারিয়া ও মিগুয়েল।

উৎসবের দিন তারাও ম্যানহোলের বাইরে সুন্দর করে সাজিয়ে রাখেন। বড়দিন থেকে শুরু করে সব রকম উৎসব এখানেই পালন করেন মারিয়া ও মিগুয়েল।

ব্ল্যাকি নামের একটি পোষ্য কুকুর রয়েছে তাদের কাছে। তারও ঠিকানা ‘কেয়ার অফ ম্যানহোল।’মারিয়া এবং মিগুয়েল যখন থাকেন না, তখন ব্ল্যাকি তাদের ‘স্বপ্নের বাড়ি’ পাহারা দেয়।

সূত্র: আনন্দবাজার

বাংলাদেশ জার্নাল/এমআর

  • সর্বশেষ
  • পঠিত