ঢাকা, রোববার, ১৭ জানুয়ারি ২০২১, ৩ মাঘ ১৪২৭ আপডেট : ১ ঘন্টা আগে English

প্রকাশ : ০১ ডিসেম্বর ২০২০, ১৩:৫৫

প্রিন্ট

ব্রহ্মপুত্রে বাঁধ দিচ্ছে চীন, দুশ্চিন্তায় ভারত

ব্রহ্মপুত্রে বাঁধ দিচ্ছে চীন, দুশ্চিন্তায় ভারত
প্রতীকী ছবি

জার্নাল ডেস্ক

তিব্বতে ব্রহ্মপুত্র নদের ওপর বাঁধ দিচ্ছে চীন। স্থানীয়ভাবে ইয়ারলাং জ্যাংবো নামে পরিচিত এশিয়ার অন্যতম বৃহৎ নদটিতে একটি বিশাল জলবিদ্যুৎ প্রকল্পের উদ্যোগ নিয়েছে দেশটি।

চীনের রাষ্ট্রায়ত্ত সংবাদ মাধ্যমের বরাতে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমগুলো জানিয়েছে, দেশটির চতুর্দশ পঞ্চবার্ষিক পরিকল্পনার (২০২১-২০২৫) অংশ হিসেবে এ প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হতে পারে।

এ প্রসঙ্গে চীনের পাওয়ার কনস্ট্রাকশন করপোরেশনের চেয়ারম্যান ইয়ান ঝিইয়ং জানান, ইতিহাসে এর সমকক্ষ কোনো প্রকল্প নেই, এটি চীনের জলবিদ্যুৎ প্রকল্পের ইতিহাসে একটি মাইলফলক হয়ে থাকবে।

তিনি আরও বলেন, দেশের একাধিক অংশের পানি সরবাহের উৎস ছাড়াও এ বাঁধ বিদ্যুৎ সরবরাহে ব্যাপক সাহায্য করবে। এ প্রকল্পের মাধ্যমে পানিবণ্টন ব্যবস্থা ও জাতীয় সুরক্ষা বজায় রাখা যাবে।

তিনি জানান, বাঁধটি থেকে বছরে ৬ কোটি কিলোওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন হবে, যা বার্ষিক ৩০০ বিলিয়ন কিলোওয়াট কার্বনমুক্ত ও পুনর্ব্যবহারযোগ্য বিদ্যুৎ উৎপাদন করবে এবং বছরে ৩০০ কোটি ডলার আয় হবে।

চীনের এমন উদ্যোগে স্বাভাবিকভাবে উদ্বিগ্ন ভারত। কেননা ব্রহ্মপুত্র নদের অববাহিকার বেশিরভাগ ভারতের মধ্যে দিয়ে বয়ে চলেছে। ফলে বাঁধ দেয়া হলে ব্রহ্মপুত্রনির্ভর মানুষজন নানা সমস্যায় পড়তে পারে বলে মনে করা হচ্ছে।

তিব্বতের পশ্চিমাঞ্চলে হিমালয় পর্বতমালার কৈলাস শৃঙ্গের কাছে জিমা ইয়ংজং হিমবাহে ব্রহ্মপুত্রের উৎপত্তি। এর পর ভারতের অরুণাচল ও আসাম হয়ে ব্রহ্মপুত্র সীমান্ত অতিক্রম করে বাংলাদেশে প্রবেশ করেছে।

ভারতীয় বিশেষজ্ঞদের ধারণা, এ প্রকল্প বাস্তবায়িত হলে নদের ভাটির দেশ ভারত ও বাংলাদেশে জলপ্রবাহ বিঘ্নিত হতে পারে।

বাংলাদেশ জার্নাল/কেআই

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত