ঢাকা, রোববার, ০৭ মার্চ ২০২১, ২২ ফাল্গুন ১৪২৭ আপডেট : ৯ মিনিট আগে English

প্রকাশ : ২৭ জানুয়ারি ২০২১, ১০:১২

প্রিন্ট

শীত উপেক্ষা করে কেন্দ্রে ভোটাররা

শীত উপেক্ষা করে কেন্দ্রে ভোটাররা

জার্নাল ডেস্ক

তীব্র শীত আর কুয়াশাকে উপেক্ষা করেই চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন নির্বাচনে পছন্দের প্রার্থীকে ভোট দিতে কেন্দ্রে কেন্দ্রে উপস্থিত হয়েছেন ভোটাররা।

বুধবার সকাল আটটায় শুরু হওয়া এই ভোট চলবে বিকাল চারটা পর্যন্ত। বিক্ষিপ্ত কিছু ঘটনা ছাড়া এ পর্যন্ত ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনে শান্তিপূর্ণ ও উৎসবমুখর পরিবেশে ভোট দিচ্ছেন ভোটাররা।

ভোটগ্রহণ শুরুর আগে থেকেই লাইনে দাঁড়িয়ে থাকেন অনেক ভোটার। পুরুষের পাশাপাশি নারী ভোটারদের উপস্থিতিও ছিলো চোখে পড়ার মতো। কুয়াশা ও শীতের কারণে সকালে ভোটার উপস্থিতি কিছুটা কম থাকলেও বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ভোটার সংখ্যা বাড়তে থাকে। এখন পর্যন্ত কোথাও কোনো অপ্রীতিকর ঘটনার খবর পাওয়া যায়নি।

চাঁন্দগাও শমসেরপাড়া চাঁন্দমিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে গিয়ে দেখা যায় পুরুষ ভোটারদের দীর্ঘ সারি। সেখানে দাঁড়ানো ইলিয়াস নামে এক ভোটার বলেন, প্রথমবারের মতো ইভিএমে ভোট দিতে এসেছেন তিনি। যে কারণে সকাল সকালেই কেন্দ্র চলে আসেন। ওই লাইনে দাঁড়িয়ে থাকা আরও অনেকে প্রথমবারের মতো ইভিএমে ভোট দিতে আসায় উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন।

শান্তিপূর্ণ পরিবেশে বুধাবারের এই ভোটগ্রহণ সম্পন্ন করতে যাবতীয় প্রস্তুতি নেয় স্থানীয় প্রশাসন। পর্যাপ্ত নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে গতকাল মঙ্গলবার ভোটগ্রহণের সামগ্রী কেন্দ্রে নেওয়া হয়।

নির্বাচনের সার্বিক প্রস্তুতি সম্পর্কে নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার হাসানুজ্জামান বলেন, ‘শান্তিপূর্ণভাবে ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে। ভোটারদের আশ্বস্ত করতে চাই, ভোটকেন্দ্রে এসে নির্বিঘ্নে ভোট দিতে পারবেন।’

হাসানুজ্জামান আরও বলেন, ‘প্রথমবারের মতো চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন নির্বাচনে সব কেন্দ্রে ইভিএমের মাধ্যমে ভোটগ্রহণ করা হচ্ছে। আশা করছি, ভোটগ্রহণের ক্ষেত্রে কোনো ধরনের অসুবিধা হবে না। সিটি করপোরেশন নির্বাচনকে ঘিরে পুরো নির্বাচনী এলাকাকে নিরাপত্তার চাদরে ঢেকে ফেলা হয়েছে।'

‘নির্বাচনে ৭ হাজার ৭৭২ জন পুলিশ সদস্য মোতায়েন আছে। সেই সঙ্গে ২৫ প্লাটুন বিজিবি, আছে র‌্যাবের ৪১টি টিম। এছাড়া পুলিশের রিজার্ভ টিম ও আনসার সদস্য মোতায়েন থাকবে নির্বাচনী এলাকায়।’-যোগ করেন এই রিটার্নিং কর্মকর্তা।

চট্টগ্রাম সিটিতে মেয়র পদে লড়ছেন আওয়ামী লীগ-সমর্থিত রেজাউল করিম চৌধুরী। আর বিএনপি সমর্থিত মেয়র প্রার্থী ডা. শাহাদাত হোসেন। গত বছরের ২৯ মার্চ চট্টগ্রাম সিটিতে ভোট হওয়ার কথা থাকলেও করোনাভাইরাসের প্রকোপ বাড়তে থাকায় আট দিন আগে তা স্থগিত করা হয়। এর প্রায় দশ মাস বন্দরনগরীতে ভোট অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

বাংলাদেশ জার্নাল/ এমএম

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত