ঢাকা, সোমবার, ০৮ মার্চ ২০২১, ২৩ ফাল্গুন ১৪২৭ আপডেট : কিছুক্ষণ আগে English

প্রকাশ : ১৮ জানুয়ারি ২০২১, ০২:২২

প্রিন্ট

বেরোবি ভিসির বিরুদ্ধে ১০৮ অভিযোগ দাখিল

বেরোবি ভিসির বিরুদ্ধে ১০৮ অভিযোগ দাখিল
ছবি- প্রতিনিধি

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক

বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক ড. নাজমুল আহসান কলিমউল্লাহর বিরুদ্ধে নিয়োগ শর্ত ভঙ্গ করে অনুপস্থিতি, নিয়োগ বাণিজ্যসহ অনিয়ম-দুর্নীতির ১০৮টি লিখিত অভিযোগ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের কাছে হস্তান্তর করেছে শিক্ষক, কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা।

রোববার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ প্রকল্পের কাজ পরিদর্শনের জন্য ঢাকা থেকে ইউজিসির একটি টিমের সঙ্গে দেখা করে এসব অভিযোগ দাখিল করেন ভিসি বিরোধী শিক্ষক, কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের সংগঠন অধিকার সুরক্ষা পরিষদ।

এর আগে ইউজিসির তদন্ত টিমের সাথে প্রকল্প পরিদর্শনের জন্য ভিসি রংপুর অবস্থান করছেন এমন গুঞ্জন উঠলে রোববার দুপুরে ভিসির বাসভবনের সামনে সাক্ষাতের জন্য অবস্থান নেন ভিসি বিরোধী শিক্ষক-কর্মকর্তা-কর্মচারীরা।

তবে ইউজিসির তদন্ত টিমের প্রধান অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ আলমগীর হোসেন, সদস্য ফেরদৌস জামান এবং দূর্গা রানী সরকার ক্যাম্পাসে প্রবেশ করলেও ভিসি আসেননি। পরে প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ প্রকল্পের অন্তর্ভুক্ত ৭৩ কোটি ৮৩ লাখ টাকার প্রকল্পে প্রধানমন্ত্রীর নামে দশতলাবিশিষ্ট ছাত্রী হল, ড. ওয়াজেদ রিসার্চ ইনস্টিটিউট, স্বাধীনতা স্মারকের কাজ সরেজমিন পরিদর্শন করে ইউজিসির তদন্ত টিম।

পরিদর্শন শেষে তদন্ত কমিটির প্রধান অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ আলমগীর হোসেন সাংবাদিকদের জানান, প্রকল্পগুলোর ডিপিপিতে যেভাবে উল্লেখ ছিলো, কার্যাদেশ দেয়ার পর তা পরিবর্তনের অভিযোগ সরেজমিন পরিদর্শন করে প্রতিবেদন দিতে ইউজিসিকে নির্দেশনা দিয়েছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়।

তিনি বলেন, এর আগে প্রকল্পের কাজের কিছু ব্যত্যয়ের অভিযোগ পেয়েছি। সরেজমিন পরিদর্শন করে যা পেয়েছি তা প্রতিবেদনে দাখিল করা হবে।

তদন্ত টিমের সদস্য ফেরদৌস জামান বিশ্ববিদ্যালয়ের অবস্থা দেখে হতাশা প্রকাশ করেন।

ভিসির ধারাবাহিক অনুপস্থিত নিয়ে দুঃখ প্রকাশ করে বলেন, শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের মতো আমরাও চাই ভিসি নিয়োগ শর্ত মেনে ক্যাম্পাসে আসুক।

তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ের চলমান পরিস্থিতি নিয়ে বলেন, মহীয়সী নারী বেগম রোকেয়ার নামে প্রতিষ্ঠিত বিশ্ববিদ্যালয়ের এমন অবস্থা সত্যিই দুঃখজনক।

এদিকে ভিসির সাক্ষাতের অপেক্ষায় থেকে দেখা না পেয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেছে অধিকার সুরক্ষা পরিষদের নেতৃবৃন্দ।

অধিকার সুরক্ষা পরিষদের আহবায়ক অধ্যাপক ড. মতিউর রহমান ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, উপাচার্য তার নিয়োগ শর্ত ভঙ্গ করে মাসের পর মাস অনুপস্থিত থাকছেন এজন্য তাকে ক্যাম্পাসমুখী করার জন্য আমরা দীর্ঘ ১ বছর থেকে তাকে ক্যাম্পাসে ফেরানোর জন্য সাক্ষাতের চেষ্টা করলেও তিনি এড়িয়ে গেছেন। গত শুক্রবার ক্যাম্পাসে আসলেও তিনি কারোর সাথে সাক্ষাৎ না করে ঢাকায় চলে যান।

তিনি বলেন, আজ (রোববার) দুপুর থেকে ভিসির সাক্ষাতের অপেক্ষায় থাকলেও তিনি প্রতিশ্রুতি দিয়েও ক্যাম্পাসে আসলেন না। এর আগে গত শুক্রবার সকালে ভিসি ক্যাম্পাসে আসলেও শিক্ষক-শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সাথে সাক্ষাৎ না করেই বাসভবনের পেছন গেট দিয়ে ক্যাম্পাস ত্যাগ করেন।

অধিকার সুরক্ষা পরিষদের সাথে কর্মসূচিতে অবস্থান নেয়া শিক্ষক সমিতির সাবেক সভাপতি ড. তুহিন ওয়াদুদ বলেন, ভিসির সাথে আজ (রোববার) দুপুরে দেখা করে সাক্ষাতের সময় চাইলে তিনি দেখা করবেন বলে জানিয়েছেন। কিন্তু আমরা বাসভবনের সামনে আমরা সাক্ষাতের অপেক্ষায় থাকলেও তিনি সাক্ষাতের ভয়ে ক্যাম্পাসে আসেননি।

আরও পড়ুন- উচ্চতর গ্রেড নিয়ে সুখবর পেলেন শিক্ষকরা

বাংলাদেশ জার্নাল/আর

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত