ঢাকা, রবিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৯, ২ অগ্রহায়ণ ১৪২৬ আপডেট : ৮ মিনিট আগে English

প্রকাশ : ২৩ আগস্ট ২০১৯, ১৭:০২

প্রিন্ট

প্রাথমিক স্কুলে হঠাৎ হাজির ডিসি, তারপর যা হলো

প্রাথমিক স্কুলে হঠাৎ হাজির ডিসি, তারপর যা হলো
অনলাইন ডেস্ক

সীতাকুণ্ড উপজেলার একটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পাঠদান করেছেন জেলা প্রশাসক মো. ইলিয়াস হোসেন। বৃহস্পতিবার (২২ আগস্ট) দুপুরে সীতাকুণ্ড উপজেলা সদর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রায় ঘণ্টাখানেক শিক্ষার্থীদের গণিত বিষয়ে পাঠদান করেন তিনি।

বিদ্যালয় সূত্রে জানা গেছে, মানসম্পন্ন প্রাথমিক শিক্ষার প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কে সচেতনতা বাড়াতে সীতাকুণ্ড উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত একটি অভিভাবক সমাবেশে যোগ দেন জেলা প্রশাসক মো. ইলিয়াস হোসেন। সমাবেশ শেষে পাশের উপজেলা সদর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় পরিদর্শনে যান তিনি।

বিদ্যালয় পরিদর্শনের সময় হঠাৎ চতুর্থ শ্রেণিতে ঢুকে পড়েন জেলা প্রশাসক। চক ও ডাস্টার নিয়ে ব্ল্যাকবোর্ডে ছোট ছোট অঙ্ক কষেন তিনি। এক পার্যায়ে শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে বলেন, তোমরা কেউ এসব অঙ্কের সমাধান করতে পারবে? শিক্ষার্থীদের পক্ষ থেকে মেলে সমাধানও।

এরপর প্রায় ঘণ্টাখানেক ওই প্রাথমিক বিদ্যালয়ে গণিত বিষয়ে পাঠদান করেন তিনি। ভালো পড়াশোনা করতে উৎসাহিত করেন বিদ্যালয়ের খুদে শিক্ষার্থীদের।

পরিদর্শন শেষে বিদ্যালয় প্রাঙ্গণ পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন এবং বিদ্যালয়ের সম্পদ সংরক্ষণের জন্য বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষকে নির্দেশনা দেন জেলা প্রশাসক মো. ইলিয়াস হোসেন।

সন্তানের ভালো ফলের পেছনে না ছুটে তাকে নৈতিকতা সম্পন্ন মানুষ হিসেবে গড়ে তুলতে অভিভাবকদের আহ্বান জানিয়েছেন জেলা প্রশাসক মো. ইলিয়াস হোসেন।

তিনি বলেন, সন্তান জিপিএ কত পেলো, পরীক্ষায় কত ভালো ফল করলো এসব দেখবেন না। অল্প বয়স থেকেই প্রতিটি শিশুকে নৈতিকতা শিক্ষা দিন।

বৃহস্পতিবার (২২ আগস্ট) দুপুরে সীতাকুণ্ড উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত অভিভাবক সমাবেশে জেলা প্রশাসক এসব কথা বলেন।

মো. ইলিয়াস হোসেন বলেন, বড় হওয়ার পূর্বশর্ত বিনয়ী হওয়া। যে মানুষ যত বেশি বিনয়ী, সে মানুষ তত বেশি বড়। পরিবার থেকেই সন্তানকে এসব শিক্ষা দিতে হবে।

নেপোলিয়ানের বিখ্যাত উক্তি ‘তোমরা আমাকে একটি শিক্ষিত মা দাও, আমি তোমাদের শিক্ষিত জাতি উপহার দেবো’ উল্লেখ করে তিনি বলেন, একজন মায়ের ত্যাগ ও সচেতনতাই পারে সন্তানকে মানুষের মতো মানুষ হিসেবে গড়ে তুলতে।

‘শিশুরাই একদিন দক্ষ মানব সম্পদ হয়ে দেশের হাল ধরবে। সার্বিক উন্নয়নে নেতৃত্ব দিয়ে দেশের অর্থনৈতিক সমৃদ্ধি এবং গতিশীল সমাজ বিনির্মাণে আবদান রাখবে।’ যোগ করেন জেলা প্রশাসক।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মিল্টন রায়ের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন উপজেলা চেয়ারম্যান এস এম আল মামুন, উপজেলা শিক্ষা অফিসার মো. নুরুচ্ছফা প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে শিক্ষার্থীদের মাঝে শিক্ষা উপকরণ ও স্কুল পোশাক, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে বাদ্যযন্ত্র এবং মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে আর্থিক অনুদানের চেক ও পুরস্কার তুলে দেন মো. ইলিয়াস হোসেন।

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত