ঢাকা, রোববার, ২৪ জানুয়ারি ২০২১, ১০ মাঘ ১৪২৭ আপডেট : ৪ ঘন্টা আগে English

প্রকাশ : ২৭ নভেম্বর ২০২০, ১২:৩৯

প্রিন্ট

জানুয়ারির আগে হচ্ছে না প্রজাপতি ও পাখি মেলা

জানুয়ারির আগে হচ্ছে না প্রজাপতি ও পাখি মেলা
ফাইল ছবি

জাবি প্রতিনিধি

করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে গত ১৭ মার্চ থেকে বন্ধ জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়। ক্যাম্পাস বন্ধ থাকায় বহিরাগত প্রবেশেও নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে কর্তৃপক্ষ। ফলে বিগত দেড় দশক ধরে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে পাখি সংরক্ষণে গণসচেতনতা বাড়ানোর লক্ষ্যে অনুষ্ঠিত হয়ে আসতে থাকা সার্বজনীন পাখি মেলা হচ্ছে না এ বছর।

সর্বশেষ চলতি বছরের ২৪ জানুয়ারি জাবিতে পাখি মেলা অনুষ্ঠিত হয়। গত বছর পাখি মেলার আহবায়ক অধ্যাপক মো. কামরুল হাসান বাংলাদেশ জার্নালকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, ‘ক্যাম্পাস বন্ধ থাকলে এবার পাখি মেলা হওয়ার সম্ভাবনা কম। ক্যাম্পাস খুললে এবং তখন যদি পাখি থাকে তাহলে মেলা হতে পারে।’

এদিকে টানা দশম বারের মতো বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণিবিদ্যা বিভাগের কীটতত্ত্ব শাখার আয়োজনে অনুষ্ঠিত হয়ে আসতে থাকা প্রজাপতি মেলাও হচ্ছে না এবার।

সর্বশেষ ২০ ডিসেম্বর, ২০১৯ জাবিতে প্রজাপতি মেলা অনুষ্ঠিত হয়। এবছর প্রজাপতি মেলা হবে কি না জানতে চাইলে গত বছরের মেলার আহ্বায়ক ও প্রাণিবিদ্যা বিভাগের অধ্যাপক মনোয়ার হোসেন বলেন, ‘করোনা মহামারীর এই পরিস্থিতিতে জানুয়ারি আগে প্রজাপতি মেলার আয়োজন সম্ভব হচ্ছে না। কারণ শিক্ষার্থী, দর্শক যাদেরকে নিয়ে যাদের জন্য এই মেলা তারা তো ক্যাম্পাসে নাই। যদি অবস্থার উন্নতি না হয় তাহলে এবছর প্রজাপতি মেলার সম্ভাবনা কমই তবে কিছুটা আশা রাখার কথা আমরা বলতে পারি। ভার্চুয়ালি হতে পারে প্রজাপতি মেলা কিন্তু সেটাও জানুয়ারির আগে কোনোভাবে সম্ভব নয়।’

পাখি সংরক্ষণে গণসচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে ২০০১ সাল থেকে ক্যাম্পাসে ধারাবাহিকভাবে পাখি মেলার আয়োজন করে আসছে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণিবিদ্যা বিভাগ। দিনব্যাপী এ মেলায় থাকতো আন্তঃবিশ্ববিদ্যালয় পাখি দেখা প্রতিযোগিতা, পাখি বিষয়ক আলোকচিত্র প্রদর্শনী, শিশু-কিশোরদের জন্য পাখির ছবি আঁকা প্রতিযোগিতা, টেলিস্কোপ ও বাইনোকুলার দিয়ে শিশু-কিশোরদের পাখি পর্যবেক্ষণ, পাখির আলোকচিত্র ও পত্র-পত্রিকা প্রদর্শনী, আন্তঃবিশ্ববিদ্যালয় পাখি চেনা প্রতিযোগিতা (অডিও ও ভিডিও এর মাধ্যমে) ও পাখি বিষয়ক কুইজ প্রতিযোগিতা এবং সব শেষে পুরস্কার বিতরণী পর্ব।

এছাড়াও গণমাধ্যমে পাখি ও জীববৈচিত্র্য সম্পর্কিত প্রকাশিত প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে প্রিন্ট, অনলাইন ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার তিনজন সংবাদকর্মীকে ‘কনজারভেশন মিডিয়া অ্যাওয়ার্ড’ এবং বিগত এক বছরে বাংলাদেশের পাখির ওপর সায়েন্টিফিক জার্নাল, প্রকাশিত প্রবন্ধ পর্যালোচনা করে একজনকে ‘সায়েন্টিফিক পাবলিকেশন অ্যাওয়ার্ড’ প্রদান করা হতো বলেও জানা যায়।

অন্যদিকে ২০১০ সাল থেকে অনুষ্ঠিত হয়ে আসা প্রজাপতি মেলায় দিনব্যাপী অন্যান্য আয়োজনের মধ্যে থাকতো শিশু কিশোরদের প্রজাপতি বিষয়ক ছবি আঁকা প্রতিযোগিতা, প্রজাপতির আলোকচিত্র প্রদর্শনী, প্রজাপতি বিষয়ক আলোকচিত্র প্রতিযোগিতা, জীবন্ত প্রজাপতি প্রদর্শন, শিশু-কিশোরদের প্রজাপতি ও প্রকৃতি বিষয়ক কুইজ প্রতিযোগিতা,প্রজাপতির আদলে ঘুড়ি উড্ডয়ন, বারোয়ারি বিতর্ক, প্রজাপতি চেনা প্রতিযোগিতা, প্রজাপতি বিষয়ক ডকুমেন্টারি প্রদর্শনী, পুরস্কার বিতরণী ও সমাপনী অনুষ্ঠান প্রভৃতি।

বাংলাদেশ জার্নাল/এনএইচ

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত