ঢাকা, রোববার, ১৪ আগস্ট ২০২২, ৩০ শ্রাবণ ১৪২৯ আপডেট : কিছুক্ষণ আগে

সবাই এখন আমাকে ‘কাজল চোখের মেয়ে’ বলে ডাকে: নাজিফা তুষি

  ইমরুল নূর

প্রকাশ : ১৬ জুলাই ২০২২, ১৭:৫৯

সবাই এখন আমাকে ‘কাজল চোখের মেয়ে’ বলে ডাকে: নাজিফা তুষি
ইমরুল নূর

ক্যারিয়ারের ব্যাপ্তি অনুযায়ী খুবই কম সংখ্যক কাজেই দেখা যায় তাকে। সংখ্যার চেয়ে কাজের মানে বেশি বিশ্বাসী বলে ‘যা পাবো তাই করবো’ থিওরি একেবারেই মানতে নারাজ। তবে ক্যারিয়ারের শুরু থেকেই কাজের বিষয়ে খুব সিলেক্টিভ হওয়ায় নেতিবাচক মন্তব্যের মুখে পড়তে হয়নি তাকে। যে কাজটাই করেছেন সেটাতেই হয়েছেন প্রশংসিত। বলছিলাম, লাক্সতারকা নাজিফা তুষির কথা, যিনি তার অভিনয় দ্যুতি ছড়িয়ে এগিয়ে চলেছেন আপন মনে।

ঈদ উৎসবে উন্মোচিত হয়েছে তার ওয়েব সিরিজ ‘সিন্ডিকেট’। জনপ্রিয় নির্মাতা শিহাব শাহীন পরিচালিত এই সিরিজটিতে প্রথমবারের মত জুটি বেঁধে অভিনয় করেছেন তারকা অভিনেতা আফরান নিশোর সঙ্গে। মুক্তির পর সিরিজটি নিয়ে রীতিমত হইচই শুরু হয়ে যায়। চারিদিকে শুধু প্রশংসা আর প্রশংসা। গুণী নির্মাতার নির্মাণশৈলী, শিল্পীদের অভিনয়, সিনেমাটগ্রাফারের সিনেমাটোগ্রাফি; সবকিছুই রয়েছে প্রশংসার তালিকায়।

সিরিজটিতে সাদাত হোসাইনের ‘কাজল চোখের মেয়ে’ কবিতার যেন সদ্যবহার হয়েছে এখানে। নিশোর আবৃত্তিতে এবং তুষির উপস্থিতি, অভিব্যক্তি, দুজনের সাবলীল অভিনয়ে কবিতাটি যেন প্রাণ খুঁজে পেয়েছে। এই দৃশ্যটি রীতিমত ভাইরাল বলা চলে। দর্শকরা সাদরে গ্রহণ করেছেন সিরিজটিকে এবং নতুন এই জুটিকে। দর্শকদের এমন অভাবনীয় সাড়ায় উচ্ছ্বসিত তুষি।

নিজের উচ্ছ্বাস প্রকাশ করতে গিয়ে এই লাক্সতারকা বলেন, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এটা নিয়ে অনেক কথা হচ্ছে, সবাই বেশ প্রশংসা করছে এবং আমার অভিনয় নিয়ে প্রশংসা করছে; সবকিছু দেখে অনেক ভালো লাগছে। এর জন্য সবার কাছে আমি অনেক গ্রেটফুল, থ্যাঙ্কফুল। আমাদের জুটিটাকেও দর্শক পছন্দ করেছে।

সবাই কবিতার অংশটা এত বেশি পছন্দ করেছে, দেখলাম। কবিতার ভাষায়ও যে প্রেম নিবেদন করা যায় বা ইমোশন কানেক্ট করে, এটা আমি শুটিংয়ের সময় বুঝতে পারিনি। কিন্তু এখন দেখি সবাই খুব এপ্রিশিয়েট করছে। এই ক্লিপসটা ভাইরাল হয়ে গিয়েছে। দর্শকরা পছন্দ করেছেন। আমাকে তো সবাই এখন ‘কাজল চোখের মেয়ে’ বলেই ডাকতে শুরু করেছে। এটা বেশ ভালো লাগছে আমার।

অনেকেই বলছিলো যে, গল্পে আমি কেন এত তাড়াতাড়ি মারা গেলাম, আমাকে আরও অনেকটা সময় পর্যন্ত নিয়ে যাওয়া যেতো। আমাকে আরও দেখতে চাওয়ার যে ইচ্ছেটা দেখেছি দর্শকদের মধ্যে, আমার মনে হয় এটাই হচ্ছে অভিনয়ের সার্থকতা। একটা অপূর্ণতা থেকে গিয়েছে, আরও দেখা গেলে হয়তো তাদের ভালো লাগতো। এই তৃপ্তিটাই অন্যরকম, বেশ মজার।

এই মুহূর্তে তুষি ব্যস্ত রয়েছেন তার মুক্তিপ্রাপ্ত সিনেমা ‘হাওয়া’ নিয়ে। আগামী ২৯ জুলাই এটি দেশব্যাপী মুক্তি পাচ্ছে প্রেক্ষাগৃহে। এখন থেকেই চলছে ভার্চুয়াল প্রচারণা। সপ্তাহ খানেকের মধ্যেই তারা সশরীরে প্রচারণায় নামবেন বলে জানান এ তারকা অভিনেত্রী।

তুষি বলেন, এখন তো ‘হাওয়া’ সিনেমার প্রচারণা করছি। কিছুদিন আগে সিনেমাটির প্রথম গান উন্মোচিত হলো ‘সাদা কালা’। এই গানটিকে দর্শকরা এতটা কানেক্ট করতে পেরেছে বা তাদের ভালো লেগেছে; সেটা দেখে আমি অবাক হয়ে গিয়েছি। আমাদের আরও দুটি গান রয়েছে কিন্তু এই গানটি যে এত বেশি সাড়া ফেলবে তা আমরা কেউই ভাবিনি। কোথায় কোথায় থেকে যে এত এত ভিডিও আর ইন্টারেস্টিং কন্টেন্ট দেখছি এই গানটি নিয়ে! রীতিমত ভাইরাল। নিজেরা গান গাইতেছে, শেয়ার করতেছে। সব জায়গায় ছড়িয়ে পড়েছে গানটি। যেখানেই যাচ্ছি শুধু শুনি ‘সাদা সাদা কালা কালা’। মানুষ কোন কন্টেন্টকে পছন্দ করলে সেটা আসলে বোঝা যায়।

সিন্ডিকেটের পর হাওয়া নিয়েও এখনই এত বেশি রেসপন্স পাচ্ছি, আলহামদুলিল্লাহ। সবাই খুব এপ্রিশিয়েট করছে। ‘হাওয়া’ আমার জন্য খুবই স্পেশাল একটা প্রজেক্ট, আমি নিজে অপেক্ষায় আছি সিনেমাটির জন্য।

উল্লেখ্য, ৮ বছর আগে অর্থাৎ ২০১৪ সালে ‘চ্যানেল আই লাক্স সুপারস্টার’ প্রতিযগীতায় অংশ নিয়ে প্রথম রানার্সআপ হয়ে শোবিজে পা রাখেন নাজিফা তুষি। সেই প্লাটফর্ম থেকে বের হয়েই নাম লিখান সিনেমাতে। ২০১৬ সালে মুক্তি পাওয়া ‘আইসক্রিম’ সিনেমার মধ্য দিয়েই বড় পর্দায় রাজকীয় অভিষেক ঘটে তার। দীর্ঘ আট বছরের ক্যারিয়ারে তাকে কোনো নাটকে অভিনয় করতে দেখা যায়নি, তবে ‘অথবা প্রেমের গল্প’ শিরোনামে একটি স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন এ লাক্সতারকা।

বাংলাদেশ জার্নাল/আইএন

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত