ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ অক্টোবর ২০১৯, ৬ কার্তিক ১৪২৬ আপডেট : ৪ ঘন্টা আগে English

প্রকাশ : ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১১:২১

প্রিন্ট

মায়ের আশীর্বাদ নিয়ে জন্মদিন শুরু মোদির

মায়ের আশীর্বাদ নিয়ে জন্মদিন শুরু মোদির
অনলাইন ডেস্ক

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির জন্য ১৭ সেপ্টেম্বর দিনটি বরাবরই খুব স্পেশাল। কেননা এই দিনটিতেই যে তিনি পৃথিবীর আলো দেখেছেন। আজ তার ৬৯তম জন্মদিন।

জন্মদিন উপলক্ষে সোমবার রাতেই ছুটে গিয়েছেন গুজরাটে, তার ৯৯ বছর বয়সী মা হীরাবেনের কাছে। মঙ্গলবার সকাল ৬টায় তিনি মায়ের আশীর্বাদ নেন। মায়ের আশীর্বাদ নিয়ে তবেই শুরু হয়েছে মোদির বিশেষ এই দিনটি।

তার মা হীরাবেন থাকেন ছোট ছেলে পঙ্কজ মোদির সঙ্গে গুজরাটের রাইসিন গ্রামে।

মায়ের আশীর্বাদ নিয়ে চলে যান নর্মদার সর্দার সরোবর বাঁধ প্রকল্পে। গত দু বছর আগে বাঁধটি নির্মাণের পর এবারই এটির পানির উচ্চতা সর্বোচ্চ পর্যায়ে পৌঁছালো। এখানে ১৩৮.৬৪ মিটার পানি জমেছে বলে জানা গেছে। তাই এই বাঁধ পরিদর্শন করেন মোদি। গুজরাটে আজও ব্যস্ত সময় কাটাবেন মোদি। রাতে আবারও ফিরে যাবেন বৃদ্ধা মায়ের কাছে।

১৯৫০ এর ১৭ সেপ্টেম্বর গুজরাটের এক শহরে জন্মেছিলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী মোদি ৷ ছোটবেলা থেকেই রেলস্টেশনে বাবার চায়ের দোকানে কাজ করে বাবাকে সাহায্য করতেন তিনি ৷ ছোটবেলা থেকেই দেশের সেবা করার বাসনা ছিল তার মধ্যে ৷ বাবাকে সাহায্য করা ছাড়া বেশিরভাগ সময় লাইব্রেরিতে সময় কাটাতেন তিনি ৷ এক সময়ে অভিনেতা হওয়ার ইচ্ছাও উঁকি দিয়েছিলো মনে।

মাত্র ১৭ বছর বয়সে ১৯৭৪ সালে নবনির্মাণ আন্দোলনে অংশগ্রহণ করেছিলেন ৷ ১৯৯০ সালে আদবানির সোমনাথ থেকে অযোধ্যা পর্যন্ত রথযাত্রার আয়োজনে বিশেষ ভূমিকা নিয়েছিলেন ৷ ২০০২ সালে গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রী রূপে নির্বাচিত হয়েছিলেন ৷ এরপরে তারই নেতৃত্বে গুজরাতে ২০০৭, ২০১২ সালে ক্ষমতায় ফিরেছে বিজেপি ৷ এখনও গুজরাতে ক্ষমতায় রয়েছে বিজেপি ৷

এরপরেই ২০১৪ সালের ২৬ মে ভারতের র ১৪তম প্রধানমন্ত্রী হিসাবে শপথগ্রহণ করেছিলেন নরেন্দ্র মোদি ৷ তিনি নির্বাচিত হয়েছিলেন বারাণসী ও গান্ধিনগর আসন দুটি থেকে। পরে নিয়মানুযায়ী বারাণসী কেন্দ্রটি রেখে গান্ধিনগরটি ছেড়ে দিয়েছিলেন ৷

চলতি বছর লোকসভা নির্বাচনে তার নেতৃত্বে বিজেপি একাই ৩০৩টি আসন পেয়েছে ৷ দ্বিতীয় মেয়াদে প্রধানমন্ত্রী হয়েছেন মোদিও। সম্প্রতি তার সরকারেরও একশো দিনের মেয়াদ সম্পন্ন হয়েছে ৷ তাই মোদির এবারের জন্মদিনটি অনেক বেশি বর্ণময় ও উল্লেখযোগ্য।

এমএ/

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত