ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৭ অক্টোবর ২০২০, ১২ কার্তিক ১৪২৭ আপডেট : ৮ মিনিট আগে English

প্রকাশ : ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৬:৫৫

প্রিন্ট

সবুজ খানের ‘ভবঘুরে জার্নাল-৫’

সবুজ খানের ‘ভবঘুরে জার্নাল-৫’
শিল্প-সাহিত্য ডেস্ক

পাহাড়ের জন্মদিবসে সেদিন

সাতরঙে সেজেছিলো রোদ্দুরগুলো

সূর্যটা পাহাড়ের মাথায় চুম্বন ঢেলে দিয়েছিলো

বিচ্ছুরিত সে আলোয় কতো শত বসন্ত এলো

আমি তবু চুম্বন চাইনি তোমার কাছে

সে আলোয়, সে বসন্তে, যৌবনে;

চেয়েছিলাম মরুর বুকে একগুচ্ছ তৃণ- ঘাস

পেয়েছি প্রতিধ্বনিহীন মৌন এক শীর্ণাকাশ;

চেয়েছিলাম পুরোনো ইতিহাসের অন্তর থেকে

একগুচ্ছ রূপালী চাঁদের আলো আমি নেবো

প্রেমহীন গণিকার মতো নিস্তেজ বিমর্ষ এই নগরীতে

সে আলো আমি ছড়াব দুঃখের সমাজে, রক্তমাখা সমাজে

ফুটপাতে- রাজপথে- মিছিলে- স্লোগানে

প্রতিটা ইটের ভাজে,

প্রতি ইঞ্চি জমিতে,

মগজে- মননে

কার্তুজে- বন্দুকের নলায়

সে আলো বিদ্রোহ হয়ে জমবে গাছে, পাতায়।

হ্যাঙারে ঝোলা মৃত লাশেদের ভিড়ে

মৃত্যুপুরী এই নগরী, কারাগারে- বদ্ধরুদ্ধদ্বারে

নগ্ন নির্জন অন্ধকারে

ফের বিক্ষোভে ফেটে পড়ুক হতাশাগুলো

পুনর্বার ভালোবাসায় যৌবন আসুক

জেগে উঠুক সেই গাছ, সেই পাতা

বিদ্রোহ দিক কিছুটা ধ্বংস,

কিছুটা বিনাশ, নতুন সভ্যতা!

চেয়েছি এমন কতো কি

চেয়েছিলাম আরও কি?

রেস্তোরাঁয় একা আমি, এইসব ভাবছি

আরও একটি পুঁজিবাদী ভোরের অপেক্ষায়

সিগারেটের ধোয়ায় আকাঙ্খাগুলো উড়ে যায়

স্ট্রেতে পড়ে থাকে হতাশাগুলোর মৃত রুগ্নরুপান্তর

বাংলাদেশ জার্নাল/এসকে

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত