ঢাকা, শুক্রবার, ৩০ অক্টোবর ২০২০, ১৫ কার্তিক ১৪২৭ আপডেট : কিছুক্ষণ আগে English

প্রকাশ : ০১ অক্টোবর ২০২০, ১৮:০১

প্রিন্ট

ধামরাইয়ে ‘রোহিঙ্গা’ তরুণীকে ধর্ষণ

ধামরাইয়ে ‘রোহিঙ্গা’ তরুণীকে ধর্ষণ
প্রতীকী ছবি
ধামরাই (ঢাকা) প্রতিনিধি

ঢাকার ধামরাইয়ে এক 'রোহিঙ্গা তরুণী' ধর্ষণের শিকার হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। অভিযুক্তকে এলাকাবাসী হাতেনাতে আটক করে পুলিশের কাছে দিয়েছে।

বৃহস্পতিবার ভোরে ঘটনাটি ঘটেছে পটল গ্রামে। এ ঘটনায় পটল গ্রামের শফিকুল ইসলাম বাদী হয়ে ধামরাই থানায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেছেন।

অভিযুক্ত আটক আবুল কালাম আজাদ (৪০) ধামরাই উপজেলার বাইশাকান্দা ইউনিয়নের পটল পূর্বপাড়ার মৃত তুলা মিয়ার ছেলে।

এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, গত তিনদিন ধরে ওই তরুণী রঘুনাথপুর বাজার এলাকায় অবস্থান করছিল। বুধবার রাতে রঘুনাথপুর বাজার থেকে তাকে ফুসলিয়ে একটি নৌকায় উঠিয়ে নিয়ে যায় আবুল কালাম। পরে তাকে পটল গ্রামের কাছে ফসলি জমিতে নিয়ে ধর্ষণ করে।

এ সময় তরুণীর চিৎকারে আশপাশের লোকজন এসে আবুল কালামকে আটক করে পুলিশে দেয়। পুলিশ নির্যাতিতাকে উদ্ধার করে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়।

জানা যায়, মেয়েটি নিজের নাম বলেছে। আর বলতে পেরেছে তার বাবার নাম। মা-বাবা নেই। তারা দুই ভাই ও পাঁচ বোন। কোথায় থাকে এবং তাদের গ্রামের নামও সঠিকভাবে বলতে পারে না। তবে তারা নদী পার হয়ে এসেছে- এটুকু বলতে পারে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

ধামরাই থানার ওসি দীপক চন্দ্র সাহা জানান, নির্যাতিতা তরুণীর ভাষা শুনে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে মেয়েটি রোহিঙ্গা।

বাংলাদেশ জার্নাল/এসকে

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত