ঢাকা, সোমবার, ১৪ অক্টোবর ২০১৯, ২৯ আশ্বিন ১৪২৬ আপডেট : ৪ মিনিট আগে English

প্রকাশ : ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৮:৫১

প্রিন্ট

ছাত্রীকে চুমু খাওয়া সেই শিক্ষকের বিচারের দাবি

ছাত্রীকে চুমু খাওয়া সেই শিক্ষকের বিচারের দাবি
জার্নাল ডেস্ক

তৃতীয় শ্রেণীর ছাত্রীর মুখে জোর করে চুমু দেয়ার ঘটনায় অভিযুক্ত প্রধান শিক্ষক আবু সালেহ মোহাম্মদ ইছার বিচার দাবি করে মঙ্গলবার বিকেলে কাংকুনিপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের অভিভাবক ও এলাকাবাসী বিক্ষোভ করেছে।

স্কুল সংলগ্ন কুয়াকাটাগামী বিকল্প সড়কের চৌরাস্তায় এ বিক্ষোভ অনুষ্ঠিত হয়। উপজেলা শিক্ষা অফিসারের কাছে বিক্ষোভরত মানুষ প্রধান শিক্ষকের বিচার দাবি করেন।

বালিয়াতলী ইউনিয়নের কাংকুনিপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আবু সালেহ ইছা সোমবার বেলা ১১টায় তৃতীয় শ্রেণীর এক ছাত্রীকে একা অফিস রুমে ডেকে নিয়ে স্কুলে না আসার কথা জিজ্ঞেস করে এক পর্যায় শরীরে হাত দেয়। মুখে চুমু দেয়।

শিশুর বাবা বলেন, ‘তারাও (শিক্ষকরা) মোগো সন্তানের বাপের মতো। ও (মেয়ে) দুই দিন স্কুলে যায়নি। একারণে রুমে একা ডাইক্কা মুখে চুমা দেয়’।

এ ঘটনার তদন্তে কলাপাড়া উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) আবুল বাশার মঙ্গলবার বিকেলে ঘটনাস্থলে তদন্ত করেছেন। অভিযুক্ত প্রধান শিক্ষক আবু সালেহ মোহাম্মদ ইছা এসব অস্বীকার করে বলেন, এটি ষড়যন্ত্র। তবে কারা ষড়যন্ত্র করছে তা বলেননি।

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত